নেপালে বন্যা-ভূমিধসে নিহত ১৪

নেপালে আকস্মিক বন্যা ও ভুমিধসে অন্তত ১৪ জন মারা গেছেন। এ সময় ভারী বৃষ্টিতে আরও নয়জন নিখোঁজ আছেন। নেপালের পুলিশের বরাত দিয়ে আজ এই তথ্য জানিয়েছে এএফপি।

নেপাল পুলিশের মুখপাত্র ডান বাহাদুর কারকি এএফপিকে বলেন, ‘পুলিশ অন্যান্য সংস্থা ও স্থানীয়দের সঙ্গে কাজ করে নিখোঁজ ব্যক্তিদের উদ্ধারের চেষ্টা চালাচ্ছে।’ দেশের বিভিন্ন অংশে উল্লেখিত ১৪ জন মারা গেছেন।

দক্ষিণ এশিয়ার বেশিরভাগ দেশে প্রতি বছর জুন থেকে সেপ্টেম্বরে বর্ষা মৌসুমের ধারাবাহিক বৃষ্টির কারণে মৃত্যু ও ধ্বংসযজ্ঞ দেখা দেয়। তবে সাম্প্রতিক বছরগুলোতে প্রাণনাশী বন্যা ও ভূমিধসের মাত্রা বেড়েছে।

বিশেষজ্ঞদের মতে, জলবায়ু পরিবর্তন ও সড়ক নির্মাণের সংখ্যা বেড়ে যাওয়ায় বন্যা ও ভূমিধসের মতো প্রাকৃতিক দুর্যোগের মাত্রা বেড়েছে।

বৃহস্পতিবার থেকে নেপালের কিছু অংশে নিরবচ্ছিন্নভাবে ভারী বৃষ্টিপাত হচ্ছে। যার ফলে একাধিক নদীর আশেপাশের এলাকায় আকস্মিক বন্যা বিষয়ক সতর্কতা জারি করেছে দেশটির দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষ। বেশ কিছু নিচু অঞ্চল ইতোমধ্যে পানিতে নিমজ্জিত হয়েছে। বিশেষত, ভারত-নেপাল সীমান্তবর্তী জেলাগুলোতে এই প্রবণতা দেখা যাচ্ছে।

গত মাসে নেপালে প্রবল ঝড় দেখা দেয়। ঝড় থেকে সৃষ্ট ভূমিধস, বজ্রপাত ও বন্যায় অন্তত ১৪ জন মারা যান।

অর্থসূচক/এএইচআর

  
    

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.