এশিয়া কাপ থেকে ৬ মিলিয়ন ডলার পাবে শ্রীলঙ্কা

আসন্ন এশিয়া কাপ অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল শ্রীলঙ্কায়। তবে দেশটিতে অর্থনৈতিক মন্দার কারণে শেষ পর্যন্ত এশিয়া কাপের আয়োজক দেশ হয় সংযুক্ত আরব আমিরাত। এবারের আসরটি শ্রীলঙ্কার মাটিতে না হলেও এই টুর্নামেন্ট থেকে বড় অঙ্কের অর্থ পাবে তারা। সবমিলিয়ে এবারের এশিয়া কাপ থেকে ৬ মিলিয়ন ইউএস ডলার পাবে লঙ্কানরা।

এশিয়া কাপের আসন্ন আসর সংযুক্ত আরব আমিরাতে হলেও আয়োজক স্বত্ব থাকবে শ্রীলঙ্কার কাছে। আগামী ২৭ আগস্ট পর্দা উঠছে এশিয়া কাপের। ১১ সেপ্টেম্বর ফাইনালের মধ্য দিয়ে শেষ হবে এশিয়ার ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় এই ক্রিকেট মহাযজ্ঞ।

শ্রীলঙ্কা ক্রিকেটের (এসএলসি) সাধারণ সম্পাদক মোহান ডি সিলভা বলেন, ‘এশিয়া কাপে অংশগ্রহণকারী প্রতি দলের জন্য ২ মিলিয়ন, হোস্টিং ফি ২.৫ মিলিয়ন এবং টিকিট বিক্রয় ফি হিসেবে ১.৫ মিলিয়ন ইউএস ডলার পাবে শ্রীলঙ্কা।’

চলমান অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক সঙ্কটের কারণে এশিয়া কাপ শ্রীলঙ্কা থেকে সরে গেছে। এসএলসি সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘দেশে বিরাজমান অস্থিরতার কারণে স্টেকহোল্ডারদের (আয়োজক সংশ্লিষ্ট) সন্দেহ ছিল। আমরা যদি এটির আয়োজন করতাম তাহলে শ্রীলঙ্কার অর্থনীতি অবশ্যই পর্যটন খাতে উর্ধ্বমুখী হতো এবং দেশের ভাবমূর্তির উন্নতি হতো।’

এশিয়া কাপের এবারের আসরে আগামী ৩০ আগস্ট বাংলাদেশ নিজেদের প্রথম ম্যাচে আফগানিস্তানের মোকাবেলা করবে। ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে শারজাহ ক্রিকেট স্টেডিয়ামে। এক সেপ্টেম্বর দ্বিতীয় ম্যাচে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ স্বাগতিক শ্রীলঙ্কা। এই ম্যাচটি হবে দুবাই ইন্টারন্যাশনাল স্টেডিয়ামে। দ্বিতীয় রাউন্ডে খেলার যোগ্যতা অর্জন করতে পারলে আরও দুটি ম্যাচ খেলার সুযোগ পাবে টাইগাররা। এশিয়া কাপের সবগুলো ম্যাচই শুরু হবে বাংলাদেশ সময় রাত ৮টায়।

অর্থসূচক/এএইচআর

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
মন্তব্য
Loading...