নড়েচড়ে বসেছে বহুজাতিক কোম্পানির শেয়ার

পুঁজিবাজারে অনেকদিন পর বহুজাতিক কোম্পানিগুলোর শেয়ারে কিছুটা নড়াচড়া দেখা যাচ্ছে। লেনদেন বাড়ছে এসব কোম্পানির শেয়ারের। কিছু শেয়ারের মূল্যও উর্ধমুখী। আজ মঙ্গলবার বহুজাতিক কোম্পানিগুলোর মুভমেন্ট যথেষ্ট দৃশ্যমান ছিল। এদিন ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) লেনদেনে শীর্ষ অবস্থান ওঠে আসে বহুজাতিক কোম্পানি ইউনিলিভার কনজ্যুমার কেয়ার। এছাড়াও শীর্ষ ২০ কোম্পানির তালিকায় জায়গা করে নেয় বৃটিশ আমেরিকান টোব্যাকো (বিএটিবিসি) ও লাফার্জহোলসিম বাংলাদেশ লিমিটেড।

বাজারের এ আচরণকে বেশ স্বাস্থ্যকর মনে করছেন বিশ্লেষকরা। কারণ বহুজাতিক কোম্পানিগুলোর প্রায় সবক’টির মৌলভিত্তি ভাল। এগুলোর সুশাসন ও আর্থিক প্রতিবেদনের স্বচ্ছতা নিয়ে তেমন প্রশ্ন নেই।

আজ (২৫ জুন) ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে ইউনিলিভার কনজ্যুমার কেয়ারের ৫৩ কোটি ৭১ লাখ টাকা মূল্যের শেয়ার কেনাবেচা হয়েছে। কোম্পানিটির লেনদেনের পরিমাণ ডিএসইর মোট লেনদেনের ১০ দশমিক ২৩ শতাংশ। গতকাল কোম্পানিটির ১০ কোটি ১৯ লাখ টাকা মূল্যের শেয়ার কেনাবেচা হয়েছিল। গতকালের তুলনায় ডিএসইতে কোম্পানিটির লেনদেন বেড়েছে ৪২৭ শতাংশ।

লেনদেনের পাশাপাশি আজ ইউনিলিভার কনজ্যুমার কেয়ারের শেয়ারের দামও বেড়েছে। ডিএসইতে শেয়ারটির দাম ৪ দশমিক ৭৮ শতাংশ বেড়ে ২ হাজার ৯০৪ টাকা ৭০ পয়সা হয়েছে। গতকাল শেয়ারটির ক্লোজিং মূল্য ছিল ২ হাজার ৭৭২ টাকা ১০ পয়সা।

ডিএসইতে টানা কয়েকদিন ধরে শীর্ষ ২০ কোম্পানির তালিকায় স্থান করে নিয়েছে বিএটিবিসি। আজ মঙ্গলবার লেনদেনে শীর্ষ কোম্পানিগুলোর মধ্যে বিএটিবিসির অবস্থান ছিল ৭ম। এদিন ডিএসইতে কোম্পানিটির ৯ কোটি ৯৮ লাখ টাকা। কোম্পানিটির লেনদেনের পরিমাণ অবশ্য আগের দিনের চেয়ে ১২ শতাংশ কমেছে। অন্যদিকে শেয়ারের দাম কমেছে দশমিক ৩১ শতাংশ। কোম্পানিটির শেয়ারের দাম দাঁড়িয়েছে ৩১৯ টাকা ৫০ পয়সা।

লেনদেনে ১৫তম অবস্থানে থাকা লাফার্জহোলসিমের শেযার কেনাবেচার পরিমাণ ছিল ৫ কোটি ৭০ লাখ টাকা, যা আগের দিনের চেয়ে ১০ শতাংশ বেশি। কোম্পানিটির শেয়ারের দামও কিছুটা বেড়েছে আজ। গতকাল এর ক্লোজিং মূল্য ছিল ৬০ টাকা ৯০ পয়সা, আজ তা বেড়ে হয়েছে ৬১ টাকা ৫০ পয়সা।

সিমেন্ট খাতের অপর বহুজাতিক কোম্পানি হাইডেলবার্গ সিমেন্টের লেনদেনের পরিমাণ আজ প্রায় ২৩ শতাংশ কমে গেলেও শেয়ারের দাম ৪ দশমিক ৮৬ শতাংশ বেড়েছে। দিনশেষে শেয়ারটির দাম দাঁড়িয়েছে ১৯২ টাকা।

সিরামিক খাতের কোম্পানি আরএকে সিরামিকের অবশ্য শেয়ারের দাম ও লেনদেন-দুটোই কমেছে। ডিএসইতে শেয়ারটির দাম দশমিক ৪০ শতাংশ কমে ২৫ টাকা ১০ পয়সা হয়েছে।

প্রকৌশল খাতের কোম্পানি সিঙ্গার বিডির শেয়ারের দাম দশমিক ৮৬ শতাংশ বেড়ে ১২৮ টাকা ৭০ পয়সা হয়েছে। তবে কোম্পানিটির লেনদেনের পরিমাণ ৫৪ শতাংশ কমে ২১ লাখ ৫০ হাজার টাকা হয়েছে।

জ্বালানি খাতের কোম্পানি লিন্ডে বিডির লেনদেন অবশ্য আজ ব্যাপকভাবে কমে গেছে। ডিএসইতে কোম্পানিটির লেনদেন ৮৭ শতাংশ কমে ৩ কোটি ২ লাখ টাকা হয়েছে। এর আগে গত ২০ জুন ডিএসইতে কোম্পানিটির রেকর্ড  কোটি টাকার লেনদেন হয়েছিল।

ডিএসইতে আজ বার্জার পেইন্টসের লেনদেনও কমেছে। তবে এদিন শেয়ারটির দাম সামান্য বেড়েছে।

আজ ডিএসইতে ম্যারিকোর শেয়ার লেনদেন ৪৪০ শতাংশ বেড়েছে। পাশাপাশি কোম্পানিটির শেয়ারের দামও বেড়েছে আজ। দিনশেষে শেয়ারটির দাম দাঁড়িয়েছে ২ হাজার ১৫২ টাকা ৬০ পয়সা, যা গতকাল ২ হাজার ১২৭ টাকা ছিল।

ওষুধ ও রসায়ন খাতের অপর বহুজাতিক কোম্পানি রেকিটবেনকাইজারের শেয়ারের দাম আজ ১ দশমিক ৯২ শতাংশ বেড়ে ৪ হাজার ৬২৩ টাকা ৩০ পয়সা হয়েছে।

টেলিকম খাতের কোম্পানি গ্রামীণফোন ও রবি আজিয়াটা-দুটিরই শেয়ারের দাম আজ সামান্য বেড়েছে।

  
    

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.