স্মার্টফোন ‘নেক্সজি এন২৫’ বাজারে আনলো ওয়ালটন

আগামী প্রজন্মের জন্য ‘নেক্সজি’ সিরিজের নতুন মডেলের স্মার্টফোন বাজারে ছেড়েছে দেশের শীর্ষ প্রযুক্তিপণ্যের ব্র্যান্ড ওয়ালটন ডিজি-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের মোবাইল বিভাগ।

সাশ্রয়ী মূল্যের ফোনটির মডেল ‘নেক্সজি এন২৫’। দৃষ্টিনন্দন ডিজাইনের ৫০ মেগাপিক্সেলের ট্রিপল এআই রিয়ার ক্যামেরার ফোনটিতে রয়েছে ৮ জিবি র‌্যাপিড মেমোরি, এফএইচডি প্লাস রেজ্যুলেশনের বিশাল ডিসপ্লে, পর্যাপ্ত স্টোরেজ ও শক্তিশালী ব্যাটারিসহ অসংখ্য অত্যাধুনিক ফিচার। ওয়ালটনের নতুন এই ফোনে রয়েছে আইপি ৫২ রেটিং যা ডাস্ট ও ওয়াটার রেজিস্ট্যান্ট হিসেবে দারুণ কার্যকর। অর্থাৎ এই বিশেষ ফিচার ডিভাইসটিকে পানি ও ধুলো-ময়লা থেকে রক্ষা করে।

ওয়ালটন মোবাইলের ক্রিয়েটিভ অ্যান্ড কমিউনিকেশন বিভাগের ইনচার্জ হাবিবুর রহমান তুহিন জানান, প্যাসিফিক সিলভার, রেডিয়েন্ট পার্পেল এবং স্যান্ড ব্ল্যাক এই তিনটি আকর্ষণীয় রঙে ফোনটি বাজারে এসেছে। ভ্যাট ছাড়া এই ফোনটির দাম পড়বে ১৩ হাজার ৯৯৯ টাকা। দেশের সব ওয়ালটন প্লাজা, মোবাইলের ব্র্যান্ড ও রিটেইল আউটলেটের পাশাপাশি ঘরে বসেই ই-কমার্স ওয়েবসাইট ওয়ালটন ই-প্লাজা (https://waltonplaza.com.bd/) এবং ওয়ালটন ডিজি-টেক (https://waltondigitech.com) থেকে ফোনটি কেনা যাচ্ছে।

ওয়ালটন মোবাইল ব্র্যান্ডিং বিভাগের ইনচার্জ মাহবুব-উল হাসান মিলটন জানান, অ্যান্ড্রয়েড ১৩ ডিডো অপারেটিং সিস্টেমে পরিচালিত এই ফোনে র‌্যাপিড মেমোরি টেকনোলজি ব্যবহৃত হয়েছে। ফলে ব্যবহারকারী এতে ১২৮ জিবি পর্যন্ত স্টোরেজ ব্যবহারের সুযোগ পাবেন। গ্রাফিক্স হিসেবে আছে মালি-জি৫৭ এমপি১। যার ফলে এই ফোনের কার্যক্ষমতা ও গতি হবে অনেক বেশি। বিভিন্ন অ্যাপস ব্যবহার, ইন্টারনেট ব্রাউজিং, থ্রিডি গেমিং, দ্রুত ভিডিও লোড ও ল্যাগ-ফ্রি ভিডিও স্ট্রিমিং সুবিধা মিলবে।
ফোনটিতে ২.০ গিগাহার্জের অক্টাকোর প্রসেসর ব্যবহৃত হয়েছে। এই ফোনটিতে আরো দেয়া হয়েছে থ্রি-ইন-ওয়ান সিম কার্ড স্লট। মাইক্রো এসডি কার্ডের মাধ্যমে ২৫৬ জিবি পর্যস্ত স্টোরেজ পাওয়া যাবে। ব্যাটারিসহ ফোনটির ওজন মাত্র ১৯৬ গ্রাম হওয়ায় ফোনটি বহন করা যাবে স্বাচ্ছন্দে।

নতুন এই স্মার্টফোনে দেয়া হয়েছে ৬.৬ ইঞ্চির এফএইচডি প্লাস পাঞ্চ-হোল ডিসপ্লে। ফলে বিভিন্ন অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার এবং ভিডিও দেখা, গেম খেলা, বই পড়া বা ইন্টারনেট ব্রাাউজিংয়ে মোবাইল স্পর্শে অনন্য অভিজ্ঞতা পাবেন গ্রাহক। ফোনটির পেছনে রয়েছে এলইডি ফ্ল্যাশ, অটোফোকাস এবং পিডিএএফসহ এআই ট্রিপল ক্যামেরা। যার প্রধান সেন্সরটি ৫০ মেগাপিক্সেলের। এর পাশাপাশি আকর্ষণীয় সেলফির জন্য সামনে রয়েছে ৮ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা। দুর্দান্ত পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য ডিভাইসটিতে রয়েছে ৫০০০ এমএএইচ হাই-ক্যাপাসিটি ব্যাটারি।

এছাড়াও নতুন এই ফোনে রয়েছে ব্রিদিং লাইটের মতো অত্যাধুনিক প্রযুুক্তির ফিচার। ব্রিদিং লাইট এক ধরনের নোটিফিকেশন অ্যালার্ট সিস্টেম। যা চার্জে থাকা অবস্থায় ফোনে আসা সব ধরনের ইনকামিং কল ও বিভিন্ন ধরনের মেসেজের নোটিফিকেশন দেখাবে। মেসেজ বা কল রিসিভ করার পূর্ব পর্যন্ত এসব নোটিফিকেশন বিশেষ লাইটিং সিস্টেমে আনরিড হিসেবে দেখাবে।

ফোনটির অন্যান্য ফিচারের মধ্যে রয়েছে ডায়নামিক ক্যাপসুল, স্মার্ট কন্ট্রোল, স্মার্ট মোশন, স্মার্ট লক, ক্লিনিং অ্যাসিস্ট্যান্ট, গেম বুস্টার ও মোবাইল গার্ডিয়ানসহ চ্যাটজিপিটির মতো সুবিধা। গাজীপুরের চন্দ্রায় ওয়ালটন ডিজি-টেক ইন্ডাস্ট্রিজের নিজস্ব কারখানায় তৈরি এই স্মার্টফোনে ৩০ দিনের বিশেষ রিপ্লেসমেন্ট সুবিধাসহ এক বছরের বিক্রয়োত্তর সেবা পাবেন গ্রাহক।

অর্থসূচক/এমএইচ/এএইচআর

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.