ভারতে বিশ্বকাপ জিতবে পাকিস্তান, শোয়েবের ভবিষ্যদ্বাণী

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের এবারের আসরের ফাইনালে আগে আলোচনায় ছিল ১৯৯২ বিশ্বকাপের ফাইনালে। মনে হতেই পারে পাকিস্তান দল যেন ইমরান খানের দলের ‘মিরাকল অব নাইন্টি টু’ অনুসরণ করছিল। সেই বিশ্বকাপের মতো এবারও ফাইনালে পাকিস্তানের সামনে ছিল ইংল্যান্ড বাঁধা। বেন স্টোকস ও স্যাম কারানদের লড়াকু পারফরম্যান্সের সামনে শিরোপা বঞ্চিত হতে হয়েছে বাবর আজমের দলকে। ফাইনালে তারা হেরেছে ৬ উইকেটের ব্যবধানে।

এমন হারের পরও পাকিস্তান দল পাশে পাচ্ছেন সাবেক গতি তারকা শোয়েব আখতারকে। শাদাব খান-শাহীন শাহ আফ্রিদিদের প্রশংসায় ভাসানোর সঙ্গে ভারতের মাটিতে ২০২৩ বিশ্বকাপ উচিয়ে ধরার আকাঙ্খার কথাও জানিয়েছেন তিনি। ফাইনালে উঠেও শিরোপা জিততে না পারায় কিছুটা কষ্টও পেয়েছেন তিনি। দল হিসেবে পারফর্ম করায় সবার জন্য শুভকামনা জানিয়েছেন পাকিস্তানের এই সাবেক পেসার।

তিনি বলেন, ‘আমি তোমাদের পাশে আছি এবং চিন্তার কিছু নেই। ছেলেরা তোমরা সত্যিই ভালো খেলেছো। এটা কষ্ট দিচ্ছে (ফাইনালে হার), হতাশও হয়েছি কিন্তু ঠিক আছে। জাতি তোমাদের পাশে আছি। ইনশাল্ললাহ, ভারতের বিশ্বকাপ উঁচিয়ে ধরবো আমরা।’

ইংলিশ ব্যাটার হ্যারি ব্রুকের ক্যাচ ধরতে গিয়ে চোটে পড়েছিলেন আফ্রিদি। এরপর ১৬তম ওভারে এক বল করেই মাঠের বাইরে চলে যেতে হয়েছিল এটাকেই ম্যাচের টার্নিং পয়েন্ট মনে করেন শোয়েব। পাকিস্তানের সাবেক এই পেসার বলেন, ‘কোনো ব্যাপার না। শাহীন ফিট ছিল না। এটাই ম্যাচের টার্নিং পয়েন্ট। কিন্তু আমরা মাথা নত করার প্রয়োজন নেই। ২০১৬ সালে বেন স্টোকস পাঁচটি ছক্কা খেয়েছিল এবং বিশ্বকাপে হারতে হয়েছিল তাদের। সে ২০২২ এ এসে মুক্তি পেয়েছে এবং দলের হয়ে বিশ্বকাপ জিতেছে।’

পাকিস্তানের বোলিং আক্রমণের প্রশংসা করে শোয়েব বলেন, ‘পাকিস্তান ফাইনালে হেরেছে কিন্তু তোমরা ছেলেরা দারুণ কাজ করেছো। তোমরা তো এই অবস্থা আসতে পেরেছো। তোমরা ফাইনালে খেলেছো। বিশেষ করে বোলিং আক্রমণ দারুণ ছিল। পুরো টুর্নামেন্ট জুড়েই তোমরা তোমাদের পারফরম্যান্স দেখিয়েছো। ভাগ্য সঙ্গে ছিল না কিন্তু তারা ভালো খেলেছে এবং ফাইনালে জায়গা করে নিয়েছিল।’

অর্থসূচক/এএইচআর

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
মন্তব্য
Loading...