হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষার কথা জানালো উত্তর কোরিয়া

কয়েকদিন আগে উত্তর কোরিয়া যে ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা করেছে তা হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্র ছিল বলে নিশ্চিত করেছে পিয়ংইয়ং। ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণের ঘটনাটি প্রত্যেক সরাসরি পর্যবেক্ষণ করেন উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উন। খবর- পার্সটুডের

দেশটির সরকারি বার্তা সংস্থা কেসিএনএ জানিয়েছে, যখন আমেরিকার সঙ্গে সামরিক উত্তেজনা চলছে তখন এক সপ্তাহেরও কম সময়ের মধ্যে দ্বিতীয় দফায় হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা করা হলো। এর মধ্যদিয়ে দেশের সামরিক বাহিনীকে শক্তিশালী করার ক্ষেত্রে কিম জং উনের দৃঢ় মনোভাব ফুটে উঠেছে। নতুন বছরে উত্তর কোরিয়ার নেতা দেশের সামরিক বাহিনীকে আরো শক্তিশালী করার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেছিলেন।

কেসিএনএ বলছে, গতকালের ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা পর্যবেক্ষণের পর কিম জং উন সামরিক বিজ্ঞানীদেরকে সংখ্যা এবং মানের দিক দিয়ে কৌশলগত সামরিক শক্তি বাড়ানোর প্রচেষ্টা জোরদার করার আহ্বান জানান।

গতকাল দক্ষিণ কোরিয়া এবং জাপান সন্দেহজনক ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণের বিষয়টি শনাক্ত করে এবং বিশ্বের বহু দেশ নিন্দা জানায়। জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।

গত সপ্তাহে উত্তর কোরিয়া যে ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা করেছিল সেই একই ধরনের ক্ষেপণাস্ত্র দেখিয়েছে উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্র নিয়ন্ত্রিত গণমাধ্যম। ক্ষেপণাস্ত্রটি ৮০০ কিলোমিটার পথ পাড়ি দিয়ে চূড়ান্তভাবে লক্ষ্যবস্তুতে আঘাত করে।

 

অর্থসূচক/এএইচআর

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
মন্তব্য
Loading...