তাল দিয়ে যত মজাদার খাবার

অর্থসূচক ডেস্ক

0
515

ভাদ্র মাস মানেই তাল পাকার সময়। এখন তাল পাকতে শুরু করেছে। বাজারে পাওয়া যাচ্ছে পাকা তাল। পাকা তালের নানা ধরনের সুস্বাদু খাবারের ধুম পরে যায় ঘরে ঘরে। তাহলে চলুন দেখে নেয়া যাক তাল দিয়ে বানানো কিছু মজাদার খাবারের নাম-

তালের ক্ষীর 

পাকা তাল দিয়ে বানানো যায় অনেক রকম খাবার। তার মধ্যে তালের ক্ষীর বা পায়েস অন্যতম। তালের ক্ষীর বা পায়েস তৈরি করতে লাগবে

উপকরণঃ তালের গোলা ২/৩ কাপ, দুধ  লিটার, চালের গুরো্‌ , নারকেল কোরা এক কাপ, চিনি স্বাদ মত, এলাচ গুড়া পরিমান মত, আস্ত এলাচ ও  দারুচিনি ২/৩ টুকরা

প্রনালীঃ আস্ত এলাচ ও দারুচিনি দিয়ে দুধ জ্বাল দিয়ে নিন। দুধ ১ লিটার হলে তাতে চালের গুড়া দিয়ে নিন। চালের গুড়া একটু সিদ্ধ হয়ে আসলে তালের গোলা দিয়ে নিন। মিশ্রন টি ঘন হয়ে আসলে চিনি ও এলাচ গুড়া দিয়ে নামিয়ে নিন। ঠান্ডা হলে পরিবেশন করুন মজাদার তালের ক্ষীর।

তালের কেক                                        

তাল দিয়ে কেক ও বানানো যায়। চলুন দেখে নেই তালের কেক এর রেসিপি-

উপকরণঃ ঘন তালের রস ২ কাপ, চালের গুড়া  দেড় কাপ, ময়দা আধা কাপ, গুড়া দুধ আধা কাপ, ডিম চারটি, চিনি ২ কাপ, ঘি এক কাপ, নারিকেল কোড়া ১ কাপ, এলাচ গুড়া, দারুচিনি গুড়া, জায়ফল গুড়্রা পরিমান মত।

প্রস্তুত প্রনালীঃ এলাচ গুঁড়া আধা চা চামচ, দারুচিনি গুঁড়া আধা চা চামচ, জায়ফল গুঁড়া চার ভাগের এক চা চামচ, ময়দা চালের গুঁড়া একসঙ্গে মিশিয়ে তালের রস দিয়ে মেখে ঢেকে গরম জায়গায় রাখুন। গোলা ফুলে দ্বিগুণ হলে চামচ দিয়ে নেড়ে মিশিয়ে দিন। ডিম ও চিনি একসঙ্গে বিট করে যখন হালকা হয়ে যাবে ঘি বা তেল মিশিয়ে তালের মিশ্রণ, সবগুলো মশলা মিশিয়ে নিন। একটি কেক তৈরির পাত্রে তেল মেখে শুকনো ময়দা ছিটিয়ে দিন। কেকের পাত্রে মিশ্রণ ঢেলে দিন। ১৬০ ডিগ্রি তাপে ইলেকট্রিক ওভেনে দশ মিনিট প্রিহিট করে এক ঘণ্টা বেক করুন। ঠাণ্ডা হলে স্লাইস করে পরিবেশন করুন। চাইলে চুলায় ও তৈরি করা যাবে।

তালের মালপোয়া

মালপোয়া  আমরা অহরহই খেয়ে থাকি। চলুন দেখা যাক তালের মালপোয়ার রেসিপি-

উপকরনঃ ময়দা দুই কাপ, তালের ঘন গোলা তিন কাপ, গুঁড়াদুধ আধা কপ, বেকিং পাউডার আধা চা চামচ, চিনি আধা কাপ, তেল এক লিটার।
শিরার জন্য- চিনি তিন কাপ, পানি দুই কাপ, দারুচিনি দুই টুকরা, এলাচ তিন-চারটি।

প্রস্তুত প্রনালিঃ প্রথমে সব উপকরন একসাথে জ্বাল দিয়ে শিরা তৈরি করে নিন।

তেলছাড়া সব একসঙ্গে গুলে গোলা তৈরি করে ঢেকে রাখুন এক ঘণ্টা। ঘন বা পাতলা হলে তালের রস বা ময়দা দিন। তারপর কড়াইতে তেল দিয়ে গরম হলে গোলা ভালো করে নেড়ে ছোট ডালের চামচে এক চা চামচ গোলা দিয়ে পিঠা ভেজে শিরায় দিন। ১৫-২০ মিনিট পর শিরা থেকে পিঠা তুলে শিরাসহ পরিবেশন করুন। শুধু তেলে ভেজেও এ পিঠা খাওয়া যায়।

তালের পিঠা

তালের পিঠা যেমন খেতে মজা তেমনি এর বানানোর পদ্ধতি টিও বেশ মজাদার। দেখে নেয়া যাক তালের পিঠা বানানোর প্রনালি-

উপকরনঃ তালের ঘন রস– ২ কাপ, চালের গুঁড়া– ৩-৪ কাপ, চিনি/গুড়– ১ কাপ (স্বাদমতো),নারকেল– ১/২ কাপ, লবন সামান্য, কিছু কলাপাতা/বা কাঁঠাল পাতা, অথাব ফয়েল পেপার পিঠা মোড়ানোর জন্য।

প্রস্তুত প্রনালিঃ ফয়েল পেপার ছাড়া সব উপকরণ একসাথে মিশিয়ে নিন। কলাপাতায় সামান্য তেল ব্রাশ করে আগুনে হালকা করে সেঁকে নিন। এবার পিঠার মিশ্রণটি ফয়েল পেপারে গোল করে ছড়িয়ে পাতা মুড়ে নিন। তাওয়া গরম করে মৃদু আঁচে পিঠা হওয়া পর্যন্ত রাখুন। এরপর গরম গরম পরিবেশন করুন।

তালের বড়া

উপকরণ: তালের পাল্প ১ কাপ, চালের গুঁড়া ২ কাপ, নারিকেল ৩ টেবিল চামচ (কোড়ানো), চাঁপাকলা ২ টা, গুঁড়া দুধ ২ টেবিল চামচ, বেকিং পাউডার সিকি চা চামচ, পানি পরিমাণমতো, ভাজার জন্য তেল পরিমাণমতো, চিনি পরিমাণমতো।

ণালি: তাল চিপে রস বের করে একটা পাতলা কাপড়ে রেখে বেঁধে ঝুলিয়ে রাখুন ৫-৬ ঘণ্টা। এবার ভাজার জন্য তেল বাদে অন্য সব উপকরণ একসাথে ভালো করে মেখে আধা ঘণ্টা ঢেকে রাখুন। তারপর কড়াইতে তেল দিয়ে গরম হলে মাখানো মিশ্রণ থেকে বড়ার আকারে ৭-৮ করে দিয়ে ডুবো তেলে সোনালি করে ভেজে নিন। সবগুলো বড়া ভাজা হয়ে গেলে পরিবেশন পাত্রে ঢেলে গরম গরম পরিবেশন করুণ মজাদার তালের বড়া।

অর্থসূচক/এসএ/