পরীমনি-পুলিশ কর্মকর্তার প্রেম খতিয়ে দেখা হচ্ছে

নিজস্ব প্রতিবেদক

0
267

পরীমনির সঙ্গে তার পূর্বের করা মামলার তদন্ত কর্মকর্তার অনৈতিক সম্পর্কের বিষয়টি খতিয়ে দেখছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)।

ইতোমধ্যে পরীমনিসহ মডেল মৌ, পিয়াসা ও তাদের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলার তদন্ত ও ডকেট বুঝে পেয়েছে সিআইডি।

এদিকে পরীমনিকে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন সিআইডির তদন্ত সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা।

শনিবার (০৭ আগস্ট) মালিবাগের সিআইডি কার্যালয়ে তাৎক্ষণিকভাবে সাংবাদিকদের সঙ্গে এসব কথা বলেন সিআইডির অতিরিক্ত ডিআইজি মো. ওমর ফারুক।

ওমর ফারুক বলেন, চিত্রনায়িকা পরীমণিসহ ফারিয়া মাহবুব পিয়াসা এবং প্রযোজক নজরুল ইসলাম রাজ আমাদের হেফাজতে রয়েছে। এছাড়া হেলেনা জাহাঙ্গীর, মিশু হাসান এখন আর আমাদের হেফাজতে নেই। তারা অন্য মামলায় ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের কাছে রিমান্ডে আছে। আশা করছি দ্রুত সময়ের মধ্যে আমরা আসামিদের শনাক্ত করতে সক্ষম হবো।

তিনি বলেন, পরীমণিসহ অন্যদের মামলার তদন্তভার আমাদের কাছে এসেছে। মামলাগুলোর তদন্ত কাজ শেষ করতে আমাদের সময় লাগবে।

তিনি আরো বলেন, মামলগুলোর তদন্তের কাজ সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হবে এবং যারা এর সঙ্গে সংশ্লিষ্ট তারা যতই প্রভাবশালী হোক না কেন তাদের আইনের আওতায় আনা হবে।

উল্লেখ্য, গত বুধবার (৪ আগস্ট) রাতে বনানীর বাসায় পৃথক অভিযান চালিয়ে পরীমণি ও রাজকে আটক করে র‍্যাব। অভিযানকালে তাদের বাসা থেকে বিপুল পরিমাণ মাদকদ্রব্য উদ্ধার করা হয়। এরপর বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পরীমণি ও তার সহযোগী দীপু এবং প্রযোজক রাজ ও তার সহযোগী সবুজ আলীর বিরুদ্ধে বনানী থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করে র‌্যাব। মামলাটি পুলিশ সদর দপ্তরের এক নির্দেশনায় সিআইডি’র কাছে হস্তান্তর করা হয়।

অর্থসূচক/এমএস