সামরিক শক্তিতে এগোলেও এখনো মিয়ানমারের পেছনে বাংলাদেশ

২০২১ সালের মিলিটারি র‍্যাংকিং প্রকাশ করছে গ্লোবাল ফায়ার পাওয়ার। র‍্যাংকিংয়ে ব্যাপক উন্নতি হয়েছে পাকিস্তান ও আরব আমিরাতের। সামরিক শক্তিতে বিশ্বের ১৩৮টি দেশের মধ্যে ৪৫তম অবস্থানে আছে বাংলাদেশ। গতবছর এ তালিকায় বাংলাদেশের অবস্থান ছিল ৪৬তম।

গ্লোবাল ফায়ার পাওয়ার (জিএফপি) নামের এ আন্তর্জাতিক গবেষণা প্রতিষ্ঠানের ‘২০২১: মিলিটারি স্ট্রেন্থ র‍্যাংকিং’ তালিকায় ৫০টিরও বেশি মাপকাঠির ভিত্তিতে এ সামরিক শক্তিমত্তার সূচকে স্কোর দেওয়া হয়েছে। বাংলাদেশ ০.৭৪৯৭ শক্তিসূচক নিয়ে ৪৫তম অবস্থানে রয়েছে।

প্রতিবারের মতো এ বছরও সামরিক শক্তিতে শীর্ষ অবস্থান ধরে রেখেছে যুক্তরাষ্ট্র। দ্বিতীয় অবস্থানে আছে রাশিয়া। অন্যদিকে তৃতীয় চীন ও চতুর্থ স্থানে ভারত।

দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে সামরিক শক্তিতে পাকিস্তানের অবস্থান ১০ম। বাংলাদেশের আরেক প্রতিবেশী দেশ মিয়ানমারের অবস্থান ৩৮তম। এছাড়া আরব আমিরাতে অবস্থান ৩৬তম।

১৩৮টি দেশের মধ্যে সামরিক শক্তিতে সর্বশেষ ১৩৮তম অবস্থানে আছে দক্ষিণ এশিয়ার দেশ ভুটান।

জিএফপি জানায়, তালিকার ক্ষেত্রে একটি দেশের সামরিক সরঞ্জামের সংখ্যার পাশাপাশি সামরিক সরঞ্জাম কতখানি বৈচিত্র্যপূর্ণ, সেটিও বিবেচনায় নেওয়া হয়েছে।

তালিকায় থাকা শীর্ষ ১০টি দেশ হলো- ১. যুক্তরাষ্ট্র, ২. রাশিয়া, ৩. চীন, ৪. ভারত, ৫. জাপান, ৬. দক্ষিণ কোরিয়া, ৭. ফ্রান্স ৮, যুক্তরাজ্য ৯. ব্রাজিল ও ১০. পাকিস্তান।

অর্থসূচক/কেএসআর

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
মন্তব্য
Loading...