গাজাবাসীকে ‘বোর্ড গেমের গুটির মতো’ উৎখাত করা হচ্ছে: জাতিসংঘ

অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকার জনগণের মর্মান্তিক দুঃখ-দুর্দশা কথা উল্লেখ করে জাতিসংঘের মানবিক ত্রাণ বিষয়ক সমন্বয় দপ্তরের প্রধান আন্দ্রেয়া ডি ডমিনিকো বলেছেন, গাজাবাসীকে বোর্ড গেমের গুটির মতো বসতবাড়ি থেকে বারবার উৎখাত করা হচ্ছে।

ইসরাইল গাজা উপত্যকায় আগ্রাসন ও গণহত্যা চালাতে গিয়ে সেখানকার অধিবাসীদেরকে বারবার তাদের ঘরবাড়ি ছাড়ার নির্দেশ দেয়ার প্রতি ইঙ্গিত করে মূলত জাতিসংঘের কর্মকর্তা এই বক্তব্য দিয়েছেন।

তিনি বলেন, গত ৯ মাসে গাজার জনগণকে বোর্ড গেমের গুটির মতো চারিদিকে ঘোরানো হয়েছে। তাদেরকে একেকবার একেক জায়গায় যেতে বলা হয়েছে; আবার সেখান থেকে আরেক জায়গায় যেতে বলা হয়েছে। এ অবস্থায় আমরা ধারণা করছি এই মুহূর্তে গাজার প্রতি ১০ জন মানুষের মধ্যে নয়জন অভ্যন্তরীণভাবে উদ্বাস্তু হয়েছেন।

ইসরাইল গত ৭ অক্টোবর থেকে অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় লাগাতার আগ্রাসন চালিয়ে আসছে। প্রথমে তারা উত্তর গাজায় আগ্রাসন শুরু করে এবং তখন সেখানকার জনগণকে দক্ষিণ গাজায় সরে যেতে বলে। পরবর্তীতে দক্ষিণ গাজায় আগ্রাসন চালায় এবং সেখান থেকে তাদেরকে রাফাহ সীমান্তে চলে যেতে বলে। এরপর দখলদার এই শক্তি ছোট শহর রাফাহতেও আগ্রাসন চালিয়েছে। গত তিন দিন আগে দখলদার ইসরাইল আবার দক্ষিণ গাজার খান ইউনুস শহরের অধিবাসীদেরকে শহর ছাড়া নির্দেশ দিয়েছে। এভাবে ইসরাইল একের পর এক নির্দেশ দিয়ে গাজাবাসীকে এক জায়গা থেকে উদ্বাস্তু করে আরেক জায়গায় পাঠাচ্ছে। পার্সটুডে

অর্থসূচক/এএইচআর

  
    

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.