ইরানকে গুঁড়িয়ে দেওয়ার হুমকি ইসরায়েলের

এবার ইরানকে গুঁড়িয়ে দেওয়ার হুমকি দিয়েছেন ইসরায়েলের পররাষ্ট্রমন্ত্রী। এতে নতুন করে ইরান-ইসরায়েল উত্তেজনা শুরুর আভাস মিলছে।

জানা গেছে, মধ্যপ্রাচ্যে নিজেদের চরম শত্রু ইরানকে পুরোপুরি গুঁড়িয়ে দেওয়ার হুমকি দিয়েছেন ইসরায়েলের পররাষ্ট্রমন্ত্রী। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম এক্সে দেওয়া এক পোস্টে কান্টজ লেখেন, যারা ধ্বংসের হুমকি দেয় তারা ধ্বংস হয়ে যাওয়াটা তাদের জন্য প্রযোজ্য। লেবাননের প্রতিরোধ যোদ্ধারা যদি ইসরায়েলে হামলা চালানো বন্ধ না করে এবং সীমান্ত থেকে সরে না যায়, তাহলে তাদের বিরুদ্ধে পূর্ণ শক্তি প্রয়োগেরও হুমকি দিয়েছেন ইসরায়েলের পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

জাতিসংঘে ইরানের মিশন শুক্রবার জানায়, ইসরায়েল যদি লেবাননে ‘পূর্ণমাত্রার সামরিক আগ্রাসন’ শুরু করে তাহলে ‘মাটির সঙ্গে মিশিয়ে দেওয়ার এক যুদ্ধ’ হবে। নিজেদের এক্স হ্যান্ডেল থেকে পোস্ট করা এক বার্তায় তারা আরও জানায়, যদি এমন পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়, তাহলে সব প্রতিরোধ ফ্রন্টের জড়িয়ে পড়ার মতো অপশন বিবেচনাধীন আছে। ইরানের এমন মন্তব্যের পরই ইসরায়েলি পররাষ্ট্রমন্ত্রী এই প্রতিক্রিয়া দেখালেন।

গেল বছরের অক্টোবর থেকে ইসরায়েলে লাগাতার হামলা চালিয়ে আসছে লেবাননের প্রতিরোধ যোদ্ধারা। চলতি সপ্তাহে নেতানিয়াহু ও ইসরায়েলের প্রতিরক্ষামন্ত্রী ইয়োভ গ্যালান্ট জানিয়েছিলেন, তারা লেবাননের সঙ্গে চলমান সমস্যা কূটনৈতিকভাবে সমাধান করতে চান। কিন্তু কান্টজকে ভিন্ন সুরেই কথা বলতে দেখা গেল। লেবাননে ইসরায়েল হামলা করলে ইরানের প্রক্সিরা পাল্টা পদক্ষেপ নিতে পারে, তাই পুরো মধ্যপ্রাচ্যে সংঘাত ছড়িয়ে পারতে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

প্রায় দুই সপ্তাহ আগে ইসরায়েলের সেনাবাহিনীর গুরুত্বপূর্ণ একজন কর্মকর্তা সরাসরি স্বীকার করেন, তারা ফিলিস্তিনি যোদ্ধাদের বিরুদ্ধে জয়ী হতে পারবেন না। এ নিয়ে ব্যাপক আলোড়ন সৃষ্টি হলে বিবৃতি দেয় ইসরায়েলি সেনাবাহিনী। ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুও এমন দাবি নাকচ করে দেন। কিন্তু এরই মধ্যে লেবাননের প্রতিরোধ যোদ্ধাদের বিরুদ্ধে ইসরায়েলের যুদ্ধ প্রস্তুতির খবর সামনে আসে।

অর্থসূচক/এমএস

  
    

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.