শীর্ষ স্টক ব্রোকারেজ হিসেবে স্বীকৃতি পেলো শান্তা সিকিউরিটিজ

পুঁজিবাজারে ক্রমবর্ধমান অবদান রাখার স্বীকৃতি হিসেবে শান্তা সিকিউরিটিজ স্টক ব্রোকার ও স্টক ডিলার ক্যাটাগরিতে তৃতীয় শীর্ষস্থানীয় ব্রোকারেজ হাউস হিসেবে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) প্রদত্ত ‘স্বাধীনতা সুবর্ণজয়ন্তী পুরস্কার ২০২৩’ লাভ করেছে।

প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁও ঢাকায় আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে বুধবার (২২ মে) শান্তা সিকিউরিটিজের প্রধান নির্বাহী কাজী আসাদুজ্জামানের হাতে পুরস্কার তুলে দেন জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী।

এই বিশেষ কৃতিত্বের বিষয়ে মন্তব্য করতে গিয়ে কাজী আসাদুজ্জামান বলেন, “বাংলাদেশের অন্যতম শীর্ষস্থানীয় ব্রোকারেজ হাউজ হিসেবে স্বীকৃতি এবং সম্মাননা পাওয়ায় আমরা গর্বিত বোধ করছি। এই পুরস্কার শান্তা সিকিউরিটিজের প্রতিটি কর্মীর কঠোর পরিশ্রম এবং নিষ্ঠার নিদর্শন। এই আনন্দক্ষণে ধন্যবাদ জানাতে চাই সকল বিনিয়োগকারীদের যারা আমাদের উপর আস্থা রেখেছেন। বিনিয়োগকারীদের সর্বোত্তম পরিষেবা প্রদানের জন্য আমরা সবসময় প্রতিজ্ঞাবদ্ধ। একটি শক্তিশালী অর্থনীতি তৈরিতে আমরা সবসময় কাজ করে যেতে চাই এবং আমার বিশ্বাস এই ইন্ডাস্ট্রির সকলে মিলে নতুন নতুন উদ্যোগ গ্রহণ করলে আমরা দেশের শেয়ারবাজারের পরিস্থিতি আরো উন্নত করতে পারবো। বাংলাদেশের আর্থিক খাতের প্রবৃদ্ধি ও উন্নয়নে অবদান রাখার জন্য আমাদের প্রচেষ্টা সবসময় অব্যাহত থাকবে।”

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী এবং সভাপতি হিসেবে ছিলেন বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অর্থ প্রতিমন্ত্রী ওয়াসেকা আয়েশা খান এবং অর্থ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সচিব মোঃ আবদুর রহমান খান। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন বিএসইসির কমিশনার শেখ শামসুদ্দিন আহমেদ। অন্যান্য উল্লেখযোগ্য অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে ছিলেন বিএসইসি কমিশনার এটিএম তারিকুজ্জামান, অধ্যাপক রুমানা ইসলাম এবং আর্থিক সম্প্রদায়ের বিশিষ্টজনেরা।

অর্থসূচক/

  
    

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.