নববর্ষ বরণে চলছে শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি 

দুয়ারে কড়া নাড়ছে পহেলা বৈশাখ। নতুন বছরকে স্বাগত জানাতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলায় চলছে শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি।

শনিবার (১৩ এপ্রিল) বিকেলে চারুকলা প্রাঙ্গণে শেষ সময়ে ব্যস্ত সময় পার করছেন শিল্পীরা।

বিশ্ববিদ্যালয়ে এবার বৈশাখ উদযাপনের মূল অংশজুড়ে রয়েছে রিকশাচিত্র। নববর্ষ বরণ করতে চারুকলা অনুষদের প্রথম ও দ্বিতীয় ফটকের পাশের দেয়ালে ইতোমধ্যে নানা চিত্র অঙ্কন করা হয়েছে। রিকশা পেইন্টিংয়ের আদলে দেয়ালে ফুটে উঠেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের ফটক, বুড়িগঙ্গার নৌকা, মা ও প্রকৃতির বিভিন্ন চিত্র।

শিক্ষার্থীদের আঁকা দেয়ালচিত্রে ঠাঁই পেয়েছে ফুল, মাছ, নৌকা, বাঘ, ময়ূরসহ নানা ফুল-পাখি। এছাড়া চারুকলার ভেতরে চলছে মুখোশ, পুতুল, ছবি আঁকার কাজ। উৎসাহী দর্শকরা তা ঘুরে ঘুরে দেখছেন।

চারুকলার শিল্পী ইলহাম বলেন, শোভাযাত্রার জন্য আমাদের প্রস্তুতি প্রায় সম্পন্ন হয়েছে। বাকি কাজ রাতের মধ্যেই শেষ করা হবে।

চারুকলার শিক্ষার্থী নওশীন বলেন, আমাদের এবারের শোভাযাত্রার যে মূল বার্তা, সেটি ধারণ করে শিল্পকর্মগুলো তৈরি করা হয়েছে।

এসবের পাশাপাশি বিক্রি করা হচ্ছে হাতে আঁকা চিত্রশিল্প, যার মূল্যমান ৫০০ টাকা। আগত দর্শনার্থীদের মধ্যে অনেকে সেসব চিত্রশিল্প কিনে নিয়ে যাচ্ছেন।

নতুর বছরকে বরণ করতে আগামীকাল সকাল ৯টায় চারুকলা প্রাঙ্গণ থেকে শুরু হবে মঙ্গল শোভাযাত্রা। যা টিএসসিতে গিয়ে শেষ হবে। আজ এক সংবাদ সম্মেলনে ঢাবি উপাচার্য ড. এ এস এম মাকসুদ কামাল এসব তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি জানান, আগামীকাল সকাল ৯টা ১৫ মিনিট থেকে মঙ্গল শোভাযাত্রা শুরু হবে। চারুকলা থেকে শুরু হয়ে ঢাকা ক্লাব ও শিশু পার্ক ঘুরে টিএসসিতে এসে শেষ হবে। এছাড়া বিকেল ৫টা পর্যন্ত চারুকলায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান চলবে।

অর্থসূচক/

  
    

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.