শেষ পর্যন্ত ডুবেছে ব্রিটিশ কার্গো জাহাজটি

ইয়েমেনের হুথি আনসারুল্লাহ আন্দোলন সমর্থিত সামরিক বাহিনীর হামলায় মারাত্মক ক্ষতির শিকার হওয়া ব্রিটিশ কার্গো জাহাজটি ডুবে গেছে। প্রায় দুই সপ্তাহ আগে বাব আল-মান্দেব প্রণালীতে রুবিমার নামের জাহাজটি ইয়েমেনের সামরিক বাহিনীর ক্ষেপণাস্ত্র হামলার শিকার হয়। কার্গো জাহাজটি যখন আক্রমণের শিকার হয় তখন উত্তর দিকে যাচ্ছিল।

ইয়েমেন বলেছে, রুবিমার শুক্রবার গভীর রাতে লোহিত সাগরে সৃষ্ট ঝড়ো আবহাওয়ার কারণে ডুবে গেছে। ইয়েমেন সতর্ক করে বলেছিল যে, জাহাজটি একটি দুঃখজনক পরিস্থিতিতে রয়েছে এবং ফুটো হওয়ার পর ইঞ্জিন রুমে পানি ঢুকে পড়ার কারণে জাহাজটি ডুবে যেতে পারে। এরপরেও পণ্যবাহী জাহাজটি ১২ দিন ধরে পরিত্যক্ত অবস্থায় ছিল।

জাহাজের এই পরিস্থিতিতে ইয়েমেনের সরকারি কর্মকর্তারা সতর্ক করে বলেছিলেন, জাহাজটি ডুবে গেলে পরিবেশগত বিপর্যয়ের সৃষ্টি হবে।

গত ৭ অক্টোবর থেকে ইসরাইল গাজা উপত্যকার ওপর বর্বর সামরিক আগ্রাসন শুরু করে।‌ এর প্রতিবাদে ইয়েমেনের হুথি আনসারুল্লাহ আন্দোলন সমর্থিত সামরিক বাহিনী এডেন উপসাগর ও লোহিত সাগর দিয়ে চলাচলকারী ইসরাইলের জাহাজে হামলা চালাচ্ছে। এছাড়া ইসরাইলের বন্দর অভিমুখে যাওয়া যেকোনো দেশের জাহাজকেও লক্ষ্য প্রস্তুতে পরিণত করা হবে বলে ইয়েমেন ঘোষণা করেছে।

এ নিয়ে আমেরিকা এবং ব্রিটেনের সাথে ইয়েমেনের সংঘাত শুরু হয়েছে। এরইমধ্যে ইঙ্গো-মার্কিন বাহিনী ইয়েমেনের বিরুদ্ধে বেশ কয়েক দফা বিমান ও ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে। এ প্রেক্ষাপটে ইয়েমেনের সেনারা ঘোষণা করেছে, ওই অঞ্চলে আমেরিকা ও ব্রিটেনের সমস্ত জাহাজ এখন তাদের বৈধ লক্ষ্যবস্তু। পার্সটুডে

অর্থসূচক/এএইচআর

  
    

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.