গাজায় যুদ্ধ নয়, গণহত্যা চলছে: ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট

ফিলিস্তিনের অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় ইসরায়েল যুদ্ধ নয়, তারা যা করছে সেটা গণহত্যা। গতকাল শনিবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) রিও ডি জেনেরিওতে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে এই মন্তব্য করেছেন ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট লুলা দা সিলভা।

ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট বলেন, গাজায় যা হচ্ছে তা গণহত্যা। হাজার হাজার শিশু মারা গেছে এবং হাজার হাজার মানুষ নিখোঁজ রয়েছে। কোনো সৈন্য মারা যাচ্ছে না। নারী ও শিশুরা হাসপাতালে মারা যাচ্ছে। এটি যদি গণহত্যা না হয়, তাহলে আসলে আমি গণহত্যা কি জানি না।

এ সময় একটি স্বাধীন ও সার্বভৌম ফিলিস্তিন রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠারও আহ্বান জানান লুলা দা সিলভা। জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদ সম্পর্কে তিনি বলেন, আজ এটি কোনো কিছুর প্রতিনিধিত্ব করে না। এটি কোনো সিদ্ধান্ত নেয় না, এটি শান্তির জন্য কিছুই করে না।

ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট বলেন, আজ বিশ্বে অনেক ভণ্ডামি। রাজনীতি খুব কম। গাজায় যা ঘটছে তা আমরা মেনে নিতে পারি না। ইউক্রেনের যুদ্ধকে আমরা মেনে নিতে পারি না।

২০২৩ সালের অক্টোবর থেকে গাজায় ইসরায়েলি হামলায় প্রায় ৩০ হাজার মানুষ প্রাণ হারিয়েছেন। তাদের বেশির ভাগ নারী ও শিশু। এ বিষয়ের উল্লেখ করে লুলা দা সিলভা বলেন, গাজায় কী ঘটছে তা বুঝতে না পারা মানুষের পক্ষে অসম্ভব।

এর আগে এক অনুষ্ঠানে অ্যাডলফ হিটলারের নেতৃত্বে ইহুদি নিধনের (হলোকাস্ট) সঙ্গে গাজায় চলমান হত্যাযজ্ঞের তুলনা করেছিলেন লুলা দা সিলভা। তার এমন বক্তব্যের ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়ায় দেখায় ইসরায়েল। লুলা দা সিলভাকে ইসরায়েলে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করা ছাড়াও তেল আবিবে নিযুক্ত ব্রাজিলের রাষ্ট্রদূতকে তলব করা হয়।

অর্থসূচক/এমএস

  
    

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.