মুস্তাফিজ থেকে কাটার শিখেছেন এবাদত

গত কয়েক মাসে বল হাতে বেশ ধারবাহিক এবাদত হোসেন। সাদা পোশাকের ক্রিকেটে দলে নিজের জায়গা পাকাপোক্ত করার পাশাপাশি সাদা বলের ক্রিকেটেও নিয়মিত হয়ে ওঠছেন এই পেসার। নিজেকে আরও পরিণত করতে এবার তার ভান্ডারে আরও একটি নতুন অস্ত্র যোগ করছেন এই ডানহাতি পেসার।

ক্যারিয়ারের শুরু থেকেই জোরে বল করতে পারেন এবাদত। সময়ের সঙ্গে সঙ্গে ইয়র্কার কিংবা বাউন্সারেও দক্ষ হয়ে ওঠেছেন। তবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে টিকে থাকতে হলে নতুন নতুন ডেলিভারী অস্ত্র ভান্ডারে যোগ করার বিকল্প নেই ।

এবাদত বলেন, ‘আমি জোরে বল করতে পারি এবং ইয়র্কারে দক্ষতা আছে। তার সঙ্গে সঙ্গে আমি কাটার নিয়ে কাজ করছি। দুইটা কাটারই আমি পারি কিন্তু আরও ভালো যাতে হয় সেজন্য কাজ করছি।’

শুধুই বাংলাদেশ নয়, বিশ্ব ক্রিকেটে যেকয়জন পেসার কাটারে প্রতিপক্ষ ব্যাটারদের নাভিশ্বাস তুলেন তাদের অন্যতম একজন মুস্তাফিজুর রহমান। এমন একজন পেসারকে সতীর্থ হিসেবে পাওয়া যেকোনো বোলারের জন্যই বাড়তি সুবিধা। মুস্তাফিজের থেকে এই সুবিধা নিতে ভুল করেননি এবাদতও। আরও অনেক আগেই মুস্তাফিজের সঙ্গে কাটার নিয়ে আলোচনা করেছেন এবাদত। তার থেকে স্লোয়ার-বাউন্সার করার গ্রিপও শিখেছেন তিনি। যা তার বোলিংয়ে নতুন মাত্রা যোগ করেছে।

এ প্রসঙ্গে এবাদত বলেন, ‘মুস্তাফিজতো কাটার ভালো পারে। তার থেকে টি-টোয়েন্টিতে (কাটার) শিখেছিলাম। স্লোয়ার-বাউন্সার করার জন্য সে আমার গ্রিপটা একটু পরিবর্তন করে দিয়েছিলো, এটাতে আমার অনেক উপকার হয়েছে।’

অর্থসূচক/এএইচআর

  
    

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.