খেললো কানাডা, জিতলো বেলজিয়াম

বিশ্বকাপে এখন শুরুতেই একের পর এক অঘটন ঘটছে। আর্জেন্টিনার পর প্রথম খেলাতেই হেরে গেছে জার্মানি। তবে স্পেনের ক্ষেত্রে তা হয়নি। তারা আক্রমণের ঝড় তুলে কোস্টারিকাকে গোলের মালা পরিয়ে দিয়েছে। স্পেনের কোচ এনরিকের ছেলেরা প্রথম খেলাতেই বুঝিয়ে দিয়েছে, তারা আক্রমণাত্মক ফুটবলই উপহার দিতে এসেছে। ৪-৩-৩ ছকে দল সাজিয়েছিলেন এনরিকে। আর বেশ কয়েকটি সহজ সুযোগ নষ্ট না করলে আরো গোল পেতে পারত স্পেন।

প্রথমার্ধেই তিন গোলে এগিয়ে যায় স্পেন। তারপর যত সময় গেছে, ততই কোস্টারিকাকে নিয়ে ছেলেখেলা করেছে স্পেনের ফুটবলাররা। অধিনায়ক তোরেস গোল করেছেন। গোল করেছেন দানি ওলমো, মার্কো অ্যাসেনসিয়ো, কার্লোস সোল।

সাতটি গোলের মধ্যে গাভির গোল ছিল দৃষ্টিনন্দন। বার্সেলোনার তরুণ ফুটবলারের এটাই প্রথম বিশ্বকাপ। তারকা হওয়ার চিহ্ন রেখে গেলেন গাভি। অসাধারণ ভলিতে গোল করলেন। নিখুঁত পাস বাড়ালেন।

এর আগের খেলাতেই জাপানের কাছে হেরে গেছে জার্মানি। সেই ভূমিকম্পের আফটারশক পরের খেলাতেও পড়বে কি না সেই প্রশ্ন উঠছিল। কিন্তু স্পেন দাঁড়াতেই দিলো না কোস্টারিকাকে।

এদিকে খেললো কানাডা, জিতলো বেলজিয়াম। পুরো খেলায় ক্যানাডার দাপট ছিল। কিন্তু কাজের কাজটা তারা করতে পারেনি। গোল দিতে পারেনি। আর সেখানেই টেক্কা দিয়ে গেল বেলজিয়াম। একমাত্র গোলটি করে তাদের জয়ের নায়ক মিচি বাতসুয়াই।

বেলজিয়ামের থেকে ফিফা তালিকায় ৩৯ ধাপ পিছনে আছে ক্যানাডা। ফিফার তালিকায় বেলজিয়াম দুই নম্বরে। তা সত্ত্বেও ম্যাচে দেখা গেল, ক্যানাডা একের পর এক আক্রমণে যাচ্ছে এবং বেলজিয়াম রক্ষণ সামলাতে ব্যস্ত।

একমাত্র গোলের পর আনন্দে মাতলেন বেলজিয়াম ফুটবলাররা। একমাত্র গোলের পর আনন্দে মাতলেন বেলজিয়াম ফুটবলাররা। অনেগুলি গোলের সুযোগ পেয়েও ক্যানাডা কাজে লাগাতে পারেনি। ফলে জয় তাদের অধরা থেকে গেল। কিন্তু তাদের ফুটবল দর্শকদের খুশি করলো। সূত্র: ডিডাব্লিউ, এপি, এএফপি, রয়টার্স

অর্থসূচক/এএইচআর

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
মন্তব্য
Loading...