দেশের বেস্ট কুলিং পারফরম্যান্স যমুনা রেফ্রিজারেটরের

সম্প্রতি বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট) কর্তৃক দেশের বেস্ট কুলিং পারফরম্যান্স রেফ্রিজারেটরের স্বীকৃতি পেয়েছে দেশের অন্যতম শিল্পগোষ্ঠী যমুনা গ্রুপের অঙ্গপ্রতিষ্ঠান যমুনা ইলেকট্রনিক্স অ্যান্ড অটোমোবাইলস। বাংলাদেশের প্রথম এবং একমাত্র ব্র্যান্ড হিসেবে এ স্বীকৃতি পাওয়া যমুনা রেফ্রিজারেটরের অভ্যন্তরীণ তাপমাত্রা মাইনাস ২৮° সেলসিয়াস থেকে ৪° সেলসিয়াস।

সম্প্রতি প্রতিষ্ঠানটির পক্ষ থেকে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, বেস্ট কুলিং পারফর্মেন্স রেফ্রিজারেটর বিবেচনায় যমুনা এখন দেশ সেরা। বাংলাদেশের অন্য রেফ্রিজারেটর কোম্পানিগুলোর সাথে বিবেচনা করলে যমুনা রেফ্রিজারেটরের কুলিং পারফরম্যান্স যোজন যোজন এগিয়ে রয়েছে। আর বেস্ট কুলিং পারফরম্যান্সের এই রেফ্রিজারেটর ক্রেতার হাতে তুলে দিতে পেরে যমুনা ইলেকট্রনিক্স অ্যান্ড অটোমোবাইলস পরিবার গর্বিত।

প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, বিদ্যুৎ ছাড়াই যমুনা রেফ্রিজারেটরে ৭২ ঘণ্টা এবং যমুনা ফ্রিজারে ১২০ ঘণ্টা খাবার ফ্রেশ ও টাটকা থাকবে। তাদের সব মডেলের রেফ্রিজারেটরে R600a গ্যাস ব্যবহৃত হয়, যা পরিবেশবান্ধব এবং মানবদেহের কোনো ক্ষতি করে না। অত্যাধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহারের ফলে যমুনা রেফ্রিজারেটরের খাবারের মান ঠিক থাকে এবং ৭০ শতাংশ বিদ্যুৎ খরচ কম হয়। সিলিকন জেল মানবদেহের জন্য ক্ষতিকর। এটি খাদ্যমান নষ্ট করে। যমুনা রেফ্রিজারেটর উৎপাদন প্রক্রিয়ার কোথাও এটি ব্যবহার করে না বলেও বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।

অনেক ফ্রিজে মানবদেহ ও পরিবেশের জন্য ক্ষতিকর R134a গ্যাস ব্যবহৃত হয়। কিন্তু যমুনার সকল মডেলের ফ্রিজে ইকো-ফ্রেন্ডলি গ্যাস R600a ব্যবহার হয়, যা পরিবেশ বান্ধব। এছাড়া অত্যাধুনিক প্রযুক্তির অ্যান্টিব্যাক্টেরিয়াল গ্যাস্কেট ব্যবহারের ফলে খাবারের মান ঠিক থাকে। এছাড়া যমুনার পণ্য কিনলেই সবচেয়ে সহজ কিস্তি সুবিধা, ক্যাশব্যাক, নিশ্চিত ডিসকাউন্ট, ১২ মাস পর্যন্ত 0% ইন্টারেস্ট এ EMI সুবিধাসহ আরো অনেক কিছু পাবেন গ্রাহকরা।

যমুনা ফ্রিজে রয়েছে ১০ বছরের কম্প্রেসার ওয়ারেন্টি। দীর্ঘস্থায়িত্ব, আকর্ষণীয় ডিজাইন, উন্নত কম্প্রেসার, ওয়ারেন্টি, বিক্রয়োত্তর সেবা সব দিক থেকে যমুনা ফ্রিজ সেরা। এছাড়া গুণে-মানে দেশসেরা যমুনা রেফ্রিজারেটর দেশের সকল জনগোষ্ঠীর ক্রয়ক্ষমতা বিবেচনায় রেখে বিভিন্ন সাইজ ও দামে পাওয়া যায়। নিয়মিত রেফ্রিজারেটরের পাশাপাশি যমুনার রয়েছে অত্যাধুনিক প্রযুক্তির ইন্টেলিজেন্ট ইনভার্টার টেকনোলজির স্মার্ট ডাবল ডোর, টি ডোর ও ক্রস ডোর রেফ্রিজারেটর। এসব রেফ্রিজারেটর এরই মধ্যে বাজারে বেশ সাড়া ফেলেছে। যমুনা ইলেকট্রনিক্স অ্যান্ড অটোমোবাইলস লিমিটেড-এর রয়েছে আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত সর্বশেষ নিবন্ধিত আইএসও ৯০০১:২০১৫, আইএসও ১৮০০১:২০১৫ এবং আইএসও ৪৫০০১:২০১৮ সার্টিফিকেট।

অর্থসূচক/এএইচআর

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
মন্তব্য
Loading...