রাজস্ব ব্যবস্থা বদলে যাবে: এনবিআর চেয়ারম্যান

কর আদায় বাড়াতে আয়কর, মূল্য সংযোজন কর ও কাস্টমসে আধুনিকায়নের প্রক্রিয়া চলছে বলে জানিয়েছেন জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) চেয়ারম্যান আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিম।

তিনি বলেছেন, এসব ক্ষেত্রে আধুনিকায়ন হলে গোটা রাজস্ব ব্যবস্থা বদলে যাবে। রাজস্ব আহরণে বাড়বে গতি।

মঙ্গলবার (৫ জুলাই) রাজধানীর সেগুনবাগিচায় রাজস্ব ভবনে এক অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। অনুষ্ঠানে ১৮তম ইএফডি লটারির ড্র অনুষ্ঠিত হয়। এসময় এনবিআরের জ্যেষ্ঠ সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

এনবিআর চেয়ারম্যান বলেন, জোর করে কারও কাছ থেকে রাজস্ব আহরণ করা যায় না। সেজন্য জনগণকে সচেতন করতে হবে। আমরা জোর দিয়েছি সিস্টেমের ওপর। সিস্টেম যেন সহজ হয় সেজন্য বিভিন্ন ক্ষেত্রে সংস্কার কার্যক্রম গ্রহণ করা হয়েছে।

সারাদেশে ৭ হাজার ইলেকট্রনিক ফিসক্যাল ডিভাইস বা ইএফডি যন্ত্র বসানো হয়েছে বলে জানান এনবিআর চেয়ারম্যান।

তিনি বলেন, এটি একটি নতুন প্রযুক্তি। এ প্রযুক্তিতে অভ্যস্ত হতে একটু সময় লাগবে। ইএফডি মেশিন ব্যবহার উৎসাহিত করতে লটারি সিস্টেম চালু করা হলেও এর প্রতি ক্রেতাদের আগ্রহ তেমন নেই। আগ্রহ না থাকার কারণ বোধগম্য নয়।

এ বিষয়ে তিনি আরও জানান, লটারি ড্রয়ের পর পুরস্কারের জন্য আবেদন জমা হয়েছে প্রায় ১ হাজার ৮০০টি। কিন্তু দাবি এসেছে মাত্র একটি। অবশ্য পুরস্কারের জন্য দাবি কেন কম পড়েছে সে সম্পর্কে কিছু বলেননি এনবিআর চেয়ারম্যান।

খুচরা পর্যায়ে ভ্যাট আদায়ে অসন্তোষ প্রকাশ করে রহমাতুল মুনিম বলেন, এ খাতে ভ্যাট আদায় প্রক্রিয়া এখনো অস্বচ্ছ। স্বচ্ছতা ফেরানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। কিন্তু সফল হতে পারছি না। এর একটি কারণ হতে পারে, খুচরা ব্যবসায়ীদের সংখ্যা অনেক বেশি। যে কারণে তাদের কাছ থেকে যথাযথ ভ্যাট আদায় করা কঠিন।

তিনি বলেন, এখানে তদারকি ব্যবস্থা দুর্বল। এটি শক্তিশালী করা গেলে খুচরা পর্যায়ে ভ্যাট আদায়ের যথেষ্ট সম্ভাবনা আছে। এজন্য অটোমেশনের কোনো বিকল্প নেই।

১৮ তম ইএফডি লটারিতে প্রথম পুরস্কারের জন্য নির্বাচিত নম্বর হলো- 002322QIVJQUG576। দ্বিতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত লটারির নম্বর- 002222FGAAXFR479। তৃতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত লটারির নম্বরগুলো- 002422LCFSNPB053, 002322CIAMZJS175, 002022YQMINRH013, 001922GWOKMUL558, 0025220UEFTSX810।

ইএফডি চালানের লটারিতে প্রথম পুরস্কার ১ লাখ টাকা, দ্বিতীয় পুরস্কার ৫০ হাজার টাকা ও তৃতীয় পুরস্কার ২৫ হাজার টাকা (পাঁচটি)। এছাড়া চতুর্থ পুরস্কার হিসেবে ৯৩ জনকে ১০ হাজার টাকা করে দেওয়া হবে। জুন মাসের ১ থেকে ৩০ তারিখ পর্যন্ত চালানের ওপর ভিত্তি করে এ লটারি ড্র অনুষ্ঠান আয়োজন করা হয়।

লটারির ড্র এনবিআরের ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হয়েছে। এছাড়া তিন কার্যদিবস পর পত্রিকায় প্রকাশ করা হবে। পুরস্কারপ্রাপ্তিতে সমস্যা হলে ০১৯৬৩-৬৩৬৫৫৪ এ নম্বরে যোগাযোগ করার অনুরোধ করেছে এনবিআর।

অর্থসূচক/এমএস

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
মন্তব্য
Loading...