ঝড় তুলা উমরানের এখনই অভিষেক হচ্ছে না

সানরাইজার্স হায়দরাবাদের জার্সিতে একের পর এক ম্যাচে গতির ঝড় তুলেছেন উমরান মালিক। গেল ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (আইপিএল) অসাধারণ পারফর্ম করেই ভারতের জাতীয় দলে প্রথমবারের মতো জায়গা করে নিয়েছেন তিনি।

আইপিএলে প্রতিটি ম্যাচে ১৪৫ থেকে ১৫০ গতিবেগে বল করে গেছেন উমরান। গুজরাট টাইটান্সের পেসার লকি ফার্গুসন যদি ফাইনাল ম্যাচে সবচেয়ে দ্রুতগতির বলটি না করতেন তাহলে আইপিএলের ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি গতিতে (১৫৭.০ কিমি গতিবেগে) করা বলটিও হতো উমরানের।

এমন গতি দিয়ে গত কয়েকমাস ধরে আলোচনায় ডানহাতি এই পেসার। দারুণ পারফরম্যান্সে জিতেছেন আইপিএলের এবারের আসরের উদীয়মান ক্রিকেটারের পুরস্কার। আইপিএলে ভালো করায় সুযোগ মিলেছে ঘরের মাঠে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ভারতের টি-টোয়েন্টি দলে।

যদিও ভারতের কোচ রাহুল দ্রাবিড় ইঙ্গিত দিয়েছেন, ‘আমাদের দেখতে হবে, তাকে (উমরান) আমরা খেলার জন্য কতটুকু সময় দিতে পারি। আমাদের স্কোয়াড অনেক বড়। সবাইকে তো আর সেরা একাদশে রাখা যাবে না। আমি ধারাবাহিক পারফর্মারদের খুব পছন্দ করি। সবাইকে থিতু হতে সময় দেই। উমরান দারুণ বোলার। সে অনেক জোরে বোলিং করতে পারে। তার বলে যথেষ্ট পেস আছে। আইপিএলে আমার ভালো লেগেছে, ভারতীরা অনেক গতিতে বোলিং করেছে। দলে তাকে পেয়ে আমি খুবই খুশি। কোচ হিসেবে আমি চাইব, সে লম্বা ফরম্যাটের ক্রিকেটেও খেলুক।’

উমরান ছাড়াও দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজের স্কোয়াডে আছেন ভুবনেশ্বর কুমার, হার্শাল প্যাটেল, আভেষ খান ও আর্শদীপ সিংয়ের মতো পেসাররা।

দক্ষিণ আফ্রিকার সিরিজে ভারতের টি-টোয়েন্টি স্কোয়াড- লোকেশ রাহুল (অধিনায়ক), রুতুরাজ গায়কোয়াড, ইশান কিশান, দীপক হুদা, শ্রেয়াস আইয়ার, ঋষভ পান্ত, দীনেশ কার্তিক, হার্দিক পান্ডিয়া, ভেঙ্কটেস আইয়ার, যুবেন্দ্র চাহাল, কুলদীপ যাদব, অক্ষর প্যাটেল, রবি বিষ্ণই, ভুবনেশ্বর কুমার, হার্শাল প্যাটেল, আভেষ খান, আর্শদীপ সিং ও উমরান মালিক।

অর্থসূচক/এএইচআর

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
মন্তব্য
Loading...