‘আমরা বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নরের পদত্যাগ দাবি করছি’

পিপলস লিজিং ও ফাইন্যান্স কোম্পানিতে আমানতকারী কাউন্সিলের পক্ষে প্রধান সমন্বয়কারী ও কনভেনার মোহাম্মদ আতিকুর রহমান বলেন, আমরা বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নরের পদত্যাগ দাবি করছি। যে ব্যাংক থেকে দুর্নীতির কারণে জনগণের আমানত দেশের বাহিরে পাচার হয়ে যায়,রিজার্ভ থেকে টাকা লুট হয়ে যায়, আমরা এমন গভর্নরের পদত্যাগ দাবি করছি। উনি গভর্নর হিসেবে ব্যর্থ।

রোববার ( ২২ মে) রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে পিপলস লিজিং অ্যান্ড ফাইন্যান্সিয়াল সার্ভিস লিমিটেডের প্রায় ৬০০০ ব্যক্তি ও ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারীদের প্রায় ৭৫০ কোটি টাকা আমানত ফেরত দেয়ার দাবিতে অনুষ্ঠিত সংবাদ সন্মেলনে আমানতকারীদের পক্ষে তিনি এসব কথা বলেন।

এসময় আমানতকারীদের পক্ষে এক লিখিত বক্তব্যে আতিকুর রহমান আতিক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দৃষ্টি আকর্ষণ করে বলেন, আমাদের নিঃস্ব অসহায় জীবনের কথা বিবেচনা করে যেন পিপলস লিজিং অ্যান্ড ফাইনাল সার্ভিসেস কোম্পানিতে আমাদের কষ্টার্জিত অর্থ দ্রুত ফেরত পেতে পারি সেই জন্য আপনার কাছে হস্তক্ষেপ কামনা করছি। একই সঙ্গে অবিলম্বে পিপলস লিজিংয়ের সঙ্গে জড়িত পি কে হালদারসহ দোষী ব্যক্তিদের আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য আকুল আবেদন জানাচ্ছি। বিশেষ করে পি কে হালদারকে বিদেশ থেকে এনে বিচার করা এবং পিপলস লিজিংয়ে আমানতের অর্থ লুটে দোষী ব্যক্তিরা যাতে বিদেশে পালিয়ে যেতে না পারে সেজন্য তাদের বিদেশ যাওয়ার ওপর নিষেধাজ্ঞা, তাদের সম্পত্তি ও ব্যাংক হিসাব জব্দ এবং গ্রেপ্তার করা একান্ত প্রয়োজন।

তিনি আরও বলেন, আমরা মনে করি বাংলাদেশ ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানে শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হস্তক্ষেপ একান্ত প্রয়োজন। পিপলস লিজিংয়ের ব্যক্তি ও ক্ষুদ্র আমানতকারীদের আমানতের অর্থ দ্রুত ফিরিয়ে দিয়ে তাকে রক্ষা করুন। বর্তমান সরকার যেভাবে ফারমার্স ব্যাংকের অবসায়ন না করে পদ্মা ব্যাংক নামে পুনর্গঠন করেছে এবং বিসিআই ব্যাংককে অবসায়ন না করে ইস্টার্ন ব্যাংক নামে পুনর্গঠন করে গ্রাহকের আমানত ফিরিয়ে দিয়েছে, ঠিক সেভাবেই পিপলস লিজিং পুনর্গঠন সহযোগিতা করে দ্রুত গ্রাহকদের অর্থ ফেরত প্রদান করে সরকার তার নিজের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করবে এবং নিরীহ আমানতকারীদের আমাদের অর্থ ফিরিয়ে দেওয়ার ব্যবস্থা করবে বলে আমরা মনে করছি।

সংবাদ সম্মেলনে পিপলস লিজিং অ্যান্ড ফাইন্যান্স কোম্পানিতে ব্যক্তি ও ক্ষুদ্র ছয় হাজার আমানতকারীদের পক্ষে সাধারণ সম্পাদক রানা ঘোষসহ অন্যান্য আমানতকারীরা উপস্থিত ছিলেন।

 

অর্থসূচক/এমআর/এএইচআর

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
মন্তব্য
Loading...