শার্দুলের সাত উইকেটে ম্যাচে ফিরল ভারত

জোহানেসবার্গে প্রথম ইনিংসে ২০২ রানে অলআউট হয়েছিল ভারত। জবাবে বড় সংগ্রহের পথে হাঁটছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। কিন্তু দ্বিতীয় দিনে প্রোটিয়াদের একাই ধসিয়ে দিয়েছেন শার্দুল ঠাকুর। এই পেসার ৬১ রানে শিকার করেছেন ৭ উইকেট। শেষ পর্যন্ত ২২৯ রানে অলআউট হয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা। আর দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাটিংয়ে নেমে দিন শেষে দুই উইকেট হারিয়ে ৮৫ রান তুলেছে ভারত।

আগের দিনের এক উইকেটে ৩৫ রান নিয়ে দ্বিতীয় দিনের খেলা শুরু করেছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। ডিন এলগার এবং কিগান পিটারসেনের সাবধানী ব্যাটিংয়ে এদিন ভালো শুরু পায় প্রোটিয়ারা। দলীয় ৮৮ রানে এলগারকে সাজঘরে ফিরিয়ে ৭৪ রানের জুটি ভাঙেন শার্দুল।

এরপর পিটারসেনও বেশিক্ষণ উইকেটে থাকতে পারেননি। তবে আউট হওয়ার আগে নিজের অভিষেক হাফ সেঞ্চুরি তুলে নিয়েছেন এই টপ অর্ডার ব্যাটার। এরপর টেন্ডা বাভুমা এক প্রান্ত আগলে রেখে ব্যাটিং করলেও বাকি ব্যাটাররা ছিলেন আসা যাওয়ার মধ্যে।

৫১ রান করা বাভুমাকে সাজঘরে ফিরিয়ে ইনিংসে পাঁচ উইকেট শিকারের মাইল ফলক স্পর্শ করেন শার্দুল। এই অভিজ্ঞ ব্যাটার হাফ সেঞ্চুরি তুলে আউট হওয়ার পর দল আর বেশি দূর এগোতে পারেনি। শেষ দিকে কেশব মহারাজের ব্যাট থেকে ২১ রান আসলে ২২৯ রানে অলআউট হয় দক্ষিণ আফ্রিকা।

ভারতের হয়ে প্রোটিয়াদের ওপর ছড়ি ঘুরিয়েছেন শার্দুল। ডানহাতি এই পেসার ৬১ রানে শিকার করেছেন ৭ উইকেট। যা দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সাদা পোশাকের ক্রিকেটে কোনো ভারতীয় বোলারের সর্বোচ্চ সাফল্য।

দ্বিতীয় ইনিংসে ভারত ব্যাটিং করতে নেমে শুরতেই হোচট খায়। পঞ্চাশ পেরোনোর আগেই দুই ওপেনারকে হারিয়ে চাপে পড়ে দলে। তবে দিনের বাকিটা সময় নিরাপদে পার করেন চেতেশ্বর পূজারা এবং আজিঙ্কা রাহানে। দুই উইকেটে ৮৫ রান নিয়ে দিন শেষ করেছে ভারত। দ্বিতীয় ইনিংসে তাদের লিড ৫৮ রানের।

অর্থসূচক/এএইচআর

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
মন্তব্য
Loading...