নিরাপদ সড়কের দাবিতে আজও শিক্ষার্থীদের অবরোধ

আজও সড়কে নেমেছেন শিক্ষার্থীরা। বুধবার (১ ডিসেম্বর) বেলা ১১টার দিকে রামপুরা ব্রিজের ওপর অবস্থান নেন আশপাশের বিভিন্ন স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীরা। সেখানে তারা রাস্তা বন্ধ করে দিয়েছেন। তাদের দাবি নিরাপদ সড়ক। তাদের ৯ দফা দাবি না মানা হলে অবরোধ কর্মসূচি চলবে।

গতকাল মঙ্গলবারও সকাল থেকে রামপুরার রাস্তাটি বন্ধ করে রাখেন তারা। বিক্ষোভ করে দিনভর। আর আজও একই রাস্তায় বন্ধ করে দিয়েছেন তারা। গণপরিবহন থেকে যাত্রীদের নামিয়ে দিয়ে তা আটকেও দিচ্ছেন। এ সময় বিক্ষোভকারী শিক্ষার্থীদের হাতে বিভিন্ন ধরনের প্ল্যাকার্ড ও স্লোগান দেখা যায়। তারা ‘উই ওয়ান্ট জাস্টিস’, ‘নিরাপদ সড়ক চাই’, ‘ডাইরেক্ট অ্যাকশান’, ‘রাতের আঁধারে শিক্ষার্থী মরে, প্রশাসন ঘুম পাড়ে’- এ ধরনের স্লোগান দিচ্ছে।

অন্যদিকে আন্দোলনকারীদের রামপুর ব্রিজ এলাকায় চলাচলরত গাড়ির লাইসেন্স যাচাই-বাছাই করতে দেখা গেছে। রোগী ও পরীক্ষার্থীদের গাড়ি আলাদা লেন করে চলাচলের ব্যবস্থা করে দিচ্ছেন তারা। সড়কের পূর্ব পাশের অংশে তারা অবস্থান নেওয়ার কারণে বাড্ডা থেকে রামপুরা পর্যন্ত তীব্র যানজট সৃষ্টি হয়েছে। সড়কের পশ্চিম পাশ দিয়ে জরুরি প্রয়োজনে চলাচলকারী গাড়ি ছাড়তে দেখা গেছে।

রামপুরা থানার ওসি রফিকুল ইসলাম গণমাধ্যমকে বলেন, ‘আমরা শুনেছি শিক্ষার্থীরা রাস্তায় নেমেছে। আগে থেকে ঘোষণা ছিল তারা আজকেও নামবে। তবে যেকোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে ঘটনাস্থলে পুলিশের যথেষ্ট উপস্থিতি রয়েছে।’

রাজধানীর শিক্ষার্থীরা রাস্তায় নেমেছিল গণপরিবহনে অর্ধেক ভাড়ার (হাফ পাস) দাবিতে। এর মধ্যে ২৪ নভেম্বর ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের ময়লার গাড়ির চাপায় নটরডেম কলেজছাত্রের মৃত্যুর ঘটনার পর তা নিরাপদ সড়ক আন্দোলনে রূপ নেয়। সোমবার রাতে রামপুরায় বাসচাপায় মাঈনুদ্দিন ইসলাম নামের আরেক শিক্ষার্থীর মৃত্যু তাতিয়ে দিয়েছে কোমলমতিদের।

 

অর্থসূচক/এএইচআর

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
মন্তব্য
Loading...