৫০ শতাংশ মহার্ঘ ভাতা ঘোষণার দাবি জি-স্কপ’র

নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বৃদ্ধির সাথে জীবনযাত্রার সামঞ্জস্য বিধানে ৫০ শতাংশ মহার্ঘ ভাতা ঘোষণা করার দাবি জানিয়েছে গার্মেন্টস শ্রমিক কর্মচারী ঐক্য পরিষদ (জি-স্কপ)। সাথে ডিজেল, কেরোসিনের বর্ধিত মূল্য এবং বাস ও লঞ্চের বর্ধিত ভাড়া প্রত্যাহারের আহ্বান জানিয়েছে সংগঠনটি।

বুধবার (১০ নভেম্বর) এক বিবৃতিতে এই দাবি জানানো হয়।

সংগঠনটির নেতৃবৃন্দ বলেন, চাল-ডাল-সবজি খাদ্যপণ্যসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় প্রায় প্রতিটি পণ্যের মূল্য দেড়গুণের বেশি হয়েছে। করোনার আঘাতে পোশাকশিল্প শ্রমিকসহ সাধারণ শ্রমজীবী মানুষের আয় কমেছে। এমন পরিস্থিতিতে সরকার আকস্মিক শিল্প উৎপাদন, পণ্য পরিবহণ এবং কৃষি উৎপাদনে সর্বোচ্চ ব্যবহৃত জ্বালানি তেল ডিজেল ও কেরোসিনের মূল্য বাড়িয়েছে। আর জ্বালানি তেলের মূল্য বাড়ানোর কারণে গণপরিবহনের ভাড়াও বেড়েছে।

তারা বলেন, ডিজেল-কেরোসিনের দাম বৃদ্ধির জন্য শুধুমাত্র যাতায়াত ভাড়া নয় প্রতিটি পণ্যের মূল্য বৃদ্ধি পাবে, যা শ্রমজীবী মানুষের জিবন যাত্রা আরও জটিল করে তুলবে। শিল্পের বিকাশের স্বার্থেই শ্রমিকের ন্যূনতম জীবনমান নিশ্চিত করতে ডিজেল-কেরোসিনের বর্ধিত মূল্য এবং পরিবহনের বর্ধিত ভাড়া প্রত্যাহার করতে হবে। পাশাপাশি নিত্যপণ্যের বাজারমূল্যের সঙ্গে সমন্বয় করে শ্রমিকদের মজুরি পুনর্নির্ধারণ করতে হবে এবং অন্তর্বর্তীকালীন কমপক্ষে ৫০ শতাংশ মহার্ঘ ভাতা ঘোষণা করতে হবে।

অর্থসূচক/এএইচআর