এ বছর হচ্ছে না বিপিএল

0
230

করোনার বৈশ্বিক সংক্রমণের মধ্যে বিসিবি প্রেসিডেন্টস কাপ ও বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপের মতো স্বল্প দৈর্ঘ্যের ক্রিকেটে ফিরলেও এখনও ঘরোয়া ক্রিকেটে ফেরাতে পারেনি বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। তবে ঘরোয়া ক্রিকেট ফেরাতে জোর চেষ্টা চালাচ্ছে দেশটির ক্রিকেট বোর্ড। ইতোমধ্যে ২০২৩ সাল পর্যন্ত ঘরোয়া ক্রিকেটের সূচি চূড়ান্ত করেছে বিসিবি। সূচি অনুযায়ী এ বছর হচ্ছে না কোনো বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) আসর।

আগামী ৩ বছর সেই সূচি অনুযায়ী মাঠে গড়াবে বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগ (এনসিএল), বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল), ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ (ডিপিএল), বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগের (বিসিএল) মতো ঘরোয়া টুর্নামেন্টগুলো। এই সূচি অনুযায়ী এনসিএলের চারটি, বিসিএলের দুইটি, বিপিএলের দুটি এবং ডিপিএলের দুইটি আসর মাঠে গড়াবে।

এর মধ্যেই অনুষ্ঠিত হবে গেল বছরের স্থগিত হওয়া ডিপিএলের মৌসুমটি। যা গেল বছরের মার্চে শুরু হলেও মাত্র এক রাউন্ড খেলা হওয়ার পর করোনার কারণে স্থগিত করতে বাধ্য হয়েছিল বিসিবি। এনসিএলের ২২তম আসরটি মাঠে গড়াবে ২২ মার্চ-৩০ এপ্রিল। এরপর প্রতি বছরের ১৫ অক্টোবর-২৫ নভেম্বর পর্যন্ত মাঠে গড়াবে এনসিএলের ২৩, ২৪ ও ২৫তম আসর। এনসিলের পর প্রতি বছরের ডিসেম্বরে মাঠে গড়াবে বিসিএল।

গেল বছরের মতো চলতি বছরও হচ্ছে না বিপিএল। আন্তর্জাতিক সূচির কারণে ফাঁকা উইন্ডো না থাকায় ২০২২ সালের জানুয়ারিতে মাঠে গড়াবে বিপিএলের অষ্টম আসর। ১৪ জানুয়ারি শুরু হওয়া বিপিএলের পর্দা নামবে ১৮ ফেব্রুয়ারি। ২০২৩ সালে ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক এই টুর্নামেন্টে নবম আসর মাঠে গড়াবে ৩ জানুয়ারি। যার ফাইনাল হবে ১৭ ফেব্রুয়ারি।

গেল বছর স্থগিত হওয়া ডিপিএল মৌসুমে এবার মাঠে গড়াবে তিন ধাপে। তবে এশিয়া কাপ মাঠে গড়ালে কোনো উইন্ডো থাকবে না বলে নিশ্চিত করেছে সিসিডিএম। ডিপিএলের পরের দুই আসর শুরু হবে প্রতি বছরের এপ্রিলে।

 

এসআর/এমকেএইচ