আইনমন্ত্রীর সামনেই দুপক্ষের সংঘর্ষ, আহত ১৫

0
130

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবা উপজেলায় আইনমন্ত্রী আনিসুল হকের অনুষ্ঠানে গিয়ে দুই মেয়র প্রার্থীর সমর্থকরা সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েছেন। সংঘর্ষে উভয়পক্ষের কমপক্ষে ১৫ জন আহত হয়েছেন।

আজ (৫ মার্চ) দুপুরের দিকে উপজেলা পরিষদ চত্বরে এ সংঘর্ষ ঘটে। এ সময় চারটি মোটরসাইকেলে অগ্নিসংযোগসহ ১০টিতে ব্যাপক ভাঙচুর চালানো হয়। সংঘর্ষের খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে টিয়ারশেল নিক্ষেপ ও লাঠিচার্জ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

স্থানীয়রা জানায়, আইনমন্ত্রী আনিসুল হকের আগমন উপলক্ষে আজ দুপুরের দিকে কসবা পৌরসভার মেয়র এমরান উদ্দিন জুয়েল ও উপজেলা যুবলীগের সভাপতি এম এ আজিজের সমর্থকেরা উপজেলা পরিষদের সামনে মিছিল নিয়ে আসেন। জুয়েল ও আজিজ আসন্ন কসবা পৌরসভা নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী। এক পর্যায়ে জুয়েল ও আজিজের সমর্থকেরা কথা কাটাকাটি, হাতাহাতি ও সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। এরপর দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে আইনমন্ত্রী তাঁর পূর্ব-নির্ধারিত স্মার্ট কার্ড বিতরণ অনুষ্ঠানে যোগ দিতে উপজেলা পরিষদের হলরুমে আসেন। এ সময় আবারও সশস্ত্র সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন দুই পক্ষের সমর্থকেরা। এতে উভয়পক্ষের কমপক্ষে ১৫ জন আহত হন। এ সময় উপজেলা মার্কেট, পুরাতন বাজারের সব দোকানপাট বন্ধ হয়ে যায়। অনুষ্ঠানে যোগ দিতে আসা লোকজন দিগ্বিদিক ছোটাছুটি করতে থাকে। পরে মন্ত্রী দ্রুত অনুষ্ঠানস্থল ত্যাগ করে তাঁর বাড়ি কসবার পানিয়ারুপ গ্রামে চলে যান। এ ঘটনায় উভয়পক্ষের নেতাকর্মীদের মাঝে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে।

কসবা থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলমগীর হোসেন জানান, এখনো পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়নি। ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। পরিস্থিতি শান্ত করার চেষ্টা করা হচ্ছে।

অর্থসূচক/এএইচআর