ঘরের মাঠে খেলা হচ্ছে না রোহিতদের?

0
161

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) ১৪তম আসরের ভেন্যু নিয়ে আবারও দেখা দিয়েছে অনিশ্চিয়তা। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হয়েছিল, এবারের মৌসুম অনুষ্ঠিত হবে মুম্বাইয়ের পাশাপাশি আহমেদাবাদের নরেন্দ্র মোদি স্টেডিয়ামে। তবে দেশটির অঙ্গরাজ্য মুম্বাইয়ে করোনা সংক্রমণের হার বাড়তে থাকায় এবারের আইপিএলে ভেন্যু হিসেবে প্রথমবারের মতো বাদ পড়তে পারে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের ঘরের মাঠ ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়াম।

ফলে ঘরের মাঠে খেলা নাও হতে পারে রোহিত শর্মার দলের। ভারতের একাধিক গণমাধ্যম জানিয়েছে, মুম্বাইয়ে করোনা ভাইরাসের দাপট বাড়ার জন্যই বোর্ড অফ ক্রিকেট ফর কন্ট্রোল ইন ইন্ডিয়া (বিসিসিআই) বিকল্প চিন্তা ভাবনা করতে বাধ্য হচ্ছে। আর এই বিকল্প চিন্তার অংশ হিসেবে আইপিএলের ভেন্যু হিসেবে দেখা যাবে না মুম্বাইয়ের এই ঐতিহাসিক স্টেডিয়ামকে।

সর্বশেষ পরিসংখ্যানে দেখা যায়, দেশটির মোট করোনা সংক্রমিত রোগীর অর্ধেকই আক্রান্ত হয়েছেন মুম্বাইতে। বর্তমানে দেশটিতে থাকা ১ লাখ ৬৯ হাজার রোগীর মধ্যে প্রায় ৭৮ হাজার ২১২ জন মুম্বাইয়ের। ফলে ধারণা করা হচ্ছে এবারের আসরে আইপিএলের সম্ভাব্য ভেন্যুর তালিকা থেকে বাদ যাচ্ছে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের ঘরের মাঠ।

অবশ্য মুম্বাইতে খেলা না হলে রোহিতদের জন্য তা একটি বড় ধাক্কাই বলা যেতে পারে। আইপিএলের অন্যতম সফল এই দলটি ঘরের মাঠে বরাবরই শক্তিশালী। যদিও এখনো আনুষ্ঠানিক ঘোষণা আসেনি, তবুও ধারণা করা হচ্ছে, চেন্নাই, ব্যাঙ্গালুরু, হায়দ্রাবাদ, কলকাতা, আহমেদাবাদ এবং দিল্লীতে খেলা হতে পারে। সূচীও জানিয়ে দেওয়া হবে খুব শীঘ্রই।

গত বছর করোনা সংক্রমণের জন্য আইপিএল প্রথমে পিছিয়ে গিয়েছিল। পরে তা চলে যায় ভারতের বাইরে। সংযুক্ত আরব আমিরাতে জৈব সুরক্ষা বলয়ে থেকে টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত হয়েছিল। এবারের আসর ভারতের একাধিক ভেন্যুতে অনুষ্ঠিত হলেও ধারণা করা হচ্ছে, নবনির্মিত নরেন্দ্র মোদি স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে আসরের নকআউট পর্ব ও ফাইনাল ম্যাচ।

 

অর্থসূচক/এএইচআর