নিউজিল্যান্ডে তাসকিনদের নতুন অভিজ্ঞতা

0
112

তিন ম্যাচের ওয়ানডে এবং সমান সংখ্যক টি-টোয়েন্টি খেলতে বাংলাদেশ দল এখন নিউজিল্যান্ডে। সফরটি মাত্র ১৫ দিনের হলেও করোনার কারণে প্রায় দেড় মাস নিউজিল্যান্ডে থাকতে হচ্ছে বাংলাদেশ দলকে। বুধবার সকালে নিউজিল্যান্ড পৌঁছালেও ৪৮ ঘণ্টা হোটেল রুমে বন্দি থাকতে হয়েছে টাইগার ক্রিকেটারদের।

আজ (২৬ ফেব্রুয়ারি) তাঁরা হোটেল থেকে বের হওয়ার সুযোগ পেয়েছেন। হোটেলের বাইরে গেলেও বেশ কিছু বিধি-নিষেধ মেনে চলতে হয়েছে তাদের। ৩০-৪০ মিনিট হাঁটার পর আবারও তারা হোটেলে ফিরে গেছেন। ১৪ দিন পর স্বাধীনভাবে ঘোরাফেরার সুযোগ পাবেন বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা।

বিদেশ সফরে এবারই প্রথম এমন অভিজ্ঞতার সম্মুখীন হয়েছেন বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা। টাইগার পেসার তাসকিন আহমেদ জানিয়েছেন, তারা সবাই করোনা পরীক্ষায় নেগেটিভ আসার পরই তাদের হাঁটার অনুমতি দেয়া হয়েছিল। আরও দুইবার পরীক্ষার পর তাদের অনুশীলনের সুযোগ দেয়া হবে। আসলে এ রকম আইসোলেশন একটি আলাদা অভিজ্ঞতা। আর আগে কখনো এভাবে সময় কাটানো হয়নি। প্রায় ৪৮ ঘণ্টা পর আমরা আমরা ৩০-৪০ মিনিটের জন্য ২ মিটার দূরত্ব বজায় রেখে হাঁটান সুযোগ পেয়েছি, এখন আবার রুমে চলে এসেছি।’

তিনি আরও বলেন, ‘ভালো লাগছে যে টানা দুই দিন একদম বন্দি রুমে। প্রথম করোনা পরীক্ষায় সবার নেগেটিভ আসার পরে আমাদের হাঁটতে দিয়েছে। তো আরও কিছু টেস্ট বাকি আছে। এর পর ইনশাআল্লাহ আল্লাহ চাইলে আমরা অনুশীলন শুরু করতে পারবো। তো সব মিলিয়ে আলাদা অনুভূতি। চাইবো যত দ্রুত অভিজ্ঞতাটা শেষ হোক ততোই ভালো।’

কীভাবে সময় কাটছে সেই বিষয়েও খোলাসা করেছেন তাসকিন। তিনি বলেছেন, ‘সময় কাটছে আসলে পরিবারের সঙ্গে কথা বলে (ফোনে), সিনেমা দেখে। বিসিবি থেকে আমাদের কিছু শরীরচর্চারও ব্যবস্থা করে দিয়েছে। কিছু ব্যান্ডস আর সাইকেলিংয়ের জন্য দেওয়া হয়েছে। কিছু কর্মসূচি দেওয়া হয়েছে যে রুমে যে সব শরীরচর্চা করা সম্ভব সেগুলো করার জন্য। তো সবমিলিয়ে এভাবেই সময়তা কেটে যাচ্ছে। কিছু শরীরেচর্চা, সিনেমা, পরিবারকে সময় এভাবেই।’

 

 

অর্থসূচক/এএইচআর