চীনকে ঠেকাতে তাইওয়ানের জঙ্গি বিমান মোতায়েন

0
238

তাইওয়ানের আকাশসীমায় আবারও চীনের ১১টি যুদ্ধবিমান প্রবেশের পর উত্তেজনা বেড়েছে। তাইওয়ান বলেছে, তারা চীনা যুদ্ধবিমান ঠেকাতে পাল্টা পদক্ষেপ নিয়েছে, কয়েকটি জঙ্গি বিমানকে এ কাজে মোতায়েন করা হয়েছে।

তাইওয়ানের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় আরও বলেছে, চীনা বিমান প্রবেশের পর সেগুলোকে ধাওয়া করতে তাদের জঙ্গি বিমানগুলো প্রাটাস দ্বীপ পর্যন্ত গেছে।

গত ১৮ সেপ্টেম্বর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অর্থনীতি বিষয়ক আন্ডার সেক্রেটারি কেইথ ক্রাচ তাইওয়ানে সফরে যাওয়ার পর চীনের সঙ্গে তাইওয়ানের উত্তেজনায় নতুন মাত্রা যোগ হয়।

গত কয়েক দশকের মধ্যে এই দ্বীপ ভূখণ্ডে মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সবচেয়ে উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা হিসেবে তাইওয়ান সফর করেন কেইথ। তার এই সফরের সময় তাইওয়ান প্রণালীর কাছে দুদিনের সামরিক মহড়া চালায় যুক্তরাষ্ট্র। সেই সময়ও চীনা সামরিক বাহিনীর একটি যুদ্ধবিমান আকাশসীমায় প্রবেশের চেষ্টা করলে তাইওয়ানের বিমানবাহিনীর এক পাইলট বাধা দেন। তাইওয়ান অভিযোগ করছে, গত কয়েক মাসে বেশ কয়েকবার চীনা যুদ্ধবিমান আকাশসীমা লঙ্ঘন করেছে। পরিস্থিতি মোকাবিলায় তারা নিজেদের সীমানায় যুদ্ধবিমান মোতায়েন করতে বাধ্য হয়েছে।

চীন তাইওয়ানকে নিজের অবিচ্ছেদ্য অংশ বলে মনে করে। সম্প্রতি চীন হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছে, তাইওয়ান আনুষ্ঠানিকভাবে স্বাধীনতার ঘোষণা দিলে দ্বীপটিকে যুদ্ধের মোকাবেলা করতে হবে।

 

অর্থসূচক/এএইচআর