বিদ্রুপকারীদের ভ্যাকসিন দিয়ে বেঁচে থাকার সুযোগ দিতে চান মন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক

0
74

করোনা নিয়ে বিদ্রুপকারী বিএনপি নেতাদেরকেও ভ্যাকসিন দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য মন্ত্রী জাহিদ মালেক।

তিনি বলেন, যারা ভ্যাকসিন নিয়ে বিদ্রুপ করেছে, তাদেরকেও ভ্যাকসিন দেওয়া হবে। আমরা চাই, তারা বেঁচে থাকুক, বেঁচে থেকে সরকারের সমালোচনা ও বিদ্রুপ করুক।

আজ বুধবার (২৭ জানুয়ারি) বিকেলে রাজধানীর কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে কোভিড-১৯ টিকা দেওয়া কার্যক্রম পরিদর্শন শেষে একথা বলেন তিনি।

করোনা ভ্যাকসিন নিজে নেবেন কি না এমন প্রশ্নের জবাবে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, আমরা আগে ভ্যাকসিন নিয়ে নিলে মানুষ বলবে, আমরা তাদেরকে দিলাম না। আমরা আগে তাদেরকে দেই। তারপর সবার দেওয়া শেষ হলে আমি নেবো।

যে ৫ জন প্রথম করোনা টিকা নিয়েছেন তারা সুস্থ আছেন জানিয়ে জাহিদ মালেক বলেন, আজ ৫ জন ভ্যাকসিন নিয়েছেন। তাদের সঙ্গে কথা বলেছি। তারা ভালো আছেন। কোনো ধরনের সমস্যা হয়নি।

মন্ত্রী বলেন, পৃথিবীতে যতগুলো ভ্যাকসিন আবিষ্কার হয়েছে, ভারতের এই ভ্যাকসিন সবচেয়ে ভালো, এটা প্রমাণিত হয়েছে। এটার পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া নেই।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, আজ খুবই আনন্দিত। বহুল প্রতীক্ষিত ভ্যাকসিন কার্যক্রম শুরু হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীও খুবই আনন্দিত। তিনি বলেন, ভ্যাকসিন অভাব হবে না। ৭ ফেব্রুয়ারি সারাদেশে ভ্যাকসিন দেওয়া হবে। ভ্যাকসিন দেওয়ার জন্য সব প্রস্তুতি সম্পন্ন। যারা ভ্যাকসিন নেবেন, তারা নিবন্ধন করবেন। কোনো সমস্যা দেখা হলে চিকিৎসা দেওয়া হবে।

জাহিদ মালেক বলেন, আমরা সুষ্ঠুভাবে টিকা দেওয়ার সব ব্যবস্থা নিয়েছি। এ জন্য ৪২ হাজার নেতাকর্মী কাজ করছে। টিকা গ্রহীতাদের নিবন্ধনের জন্য আইসিটি মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে একটি অ্যাপ চালু করা হয়েছে।

এরই মধ্যে আমাদের দেশে ৫০ লাখ ভ্যাকসিন এসেছে। ভারত সরকার দুঃসময়ে আরো ২০ লাখ ভ্যাকসিন উপহার দিয়েছে। এ জন্য ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে ধন্যবাদ জানাই। এ পর্যন্ত যত ভ্যাকসিন উৎপাদন হয়েছে তার মধ্যে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রেজেনেকার ভ্যাকসিন সবচেয়ে নিরাপদ, যোগ করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

অর্থসূচক/কেএসআর