‘আরও ১০০টি টেস্ট খেলবে ডি কক’

0
172

পাকিস্তানের বিপক্ষে ক্যারিয়ারের ৫০তম টেস্ট খেলতে নেমেছেন কুইন্টন ডি কক। মার্ক বাউচার বিশ্বাস করেন দেশের হয়ে অন্তত আরও ১০০টি টেস্ট খেলবেন প্রোটিয়া অধিনায়ক। সেই সঙ্গে পাকিস্তানের মাটিতে এই উইকেটরক্ষক নিজের সেরা খেলাটা খেলবেন বলে আশাবাদী দক্ষিণ আফ্রিকার প্রধান কোচ বাউচার।

২০১৪ সালে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টেস্ট অভিষেক হয় ডি ককের। এই ৭ বছরে ৫০টি টেস্ট খেলার সঙ্গে দলটির অধিনায়কত্বও পেয়েছেন তিনি। ৫টি সেঞ্চুরি এবং ২১টি হাফ সেঞ্চুরির মালিক বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান পাকিস্তানের মাটিতেই ছুঁয়ে ফেলতে পারেন ৩০০০ টেস্ট রান। এই মুহূর্তে তার মোট রান ২৯৬২।

সাদা পোশাকে প্রথম মাঠে নামার আগে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে ২০১২ সালে অভিষেক হয় ডি ককের। প্রোটিয়াদের হয়ে প্রথম ওয়ানডে খেলেছিলেন ২০১৩ সালে। ১২১ টি ওয়ানডে এবং ৪৭টি টি-টোয়েন্টি খেলা ডি কক গত বছর জুনে রঙ্গিন জার্সির নেতৃত্ব পান। এরপর ডিসেম্বরে ২০২০-২১ মৌসুমের জন্য টেস্ট দলের নেতৃত্বও দেয়া হয় তাকে। তার অধীনেই শ্রীলঙ্কাকে ঘরের মাঠে হোয়াইটওয়াশ করে দক্ষিণ আফ্রিকা। এবার ১৪ বছর পর এই উইকেটরক্ষকের নেতৃত্বে পাকিস্তান সফরে গিয়েছে ফাফ ডু প্লেসি-ডিন এলগাররা।

১৯৯২ সাল থেকে এখন পর্যন্ত দক্ষিণ আফ্রিকার ১৮তম ক্রিকেটার হিসেবে ৫০টি টেস্ট খেলার মাইলফলক স্পর্শ করেছেন ডি কক। বাউচার বলেন, ‘ডি ককের ক্যারিয়ার তো মাত্র শুরু হলো। আশা করছি সে অন্তত আরও ১০০টি টেস্ট খেলবে। ব্যক্তিগতভাবে আমি চাই এই সিরিজে সে তার সেরা খেলাটা খেলুক। তাহলে অধিনায়ক হিসেবে তার এবং দলের জন্য মঙ্গলকর হবে। কুইনি (ডি কক) একজন স্পেশাল ক্রিকেটার। আমরা তার সেরাটা দেখেছি। সে এমন একজন খেলোয়াড় যে প্রতিপক্ষ কোনোদিনই চাইবে না যে সে ভালো ফর্মে থাকুক। কারণ সে প্রতিপক্ষের হাত থেকে ম্যাচ ছিনিয়ে নিতে পারে। এমনকি সে বাইরের মাটিতে খেলতেও স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করে।

 

 

অর্থসূচক/এএইচআর