শেষ দিনের অপেক্ষায় অস্ট্রেলিয়া-ভারত

অনাকাঙ্ক্ষিত ‘ইনজুরি ও বৃষ্টি’ দুটোই সখ্যতা গড়ে তুলেছে ব্রিসবেন টেস্টের সঙ্গে। চতুর্থ দিনেও বৃষ্টির পেটে গিয়েছে প্রায় ২৩ ওভার। এ কারণেই ইনজুরি জর্জরিত দল নিয়ে সিরিজ জিততেই শেষ দিনে ভারতের জন্য প্রয়োজন ৩২৪ রান। অপরদিকে স্বাগতিকদের লক্ষ্য ১০ উইকেট। শেষ সেশনে পুরো খেলা মাঠে না গড়ানোয় শেষ দিনের সময় এগিয়ে আনা হতে পারে। সেক্ষেত্রে ৯৮ ওভার খেলা হবে।

স্বাগতিকদের দেয়া ৩২৮ রানের লক্ষ্যে মাত্র কেবল ১.৫ ওভার ব্যাটিং করতে পারেন রোহিত শর্মা ও শুভমান গিল। মিচেল স্টার্কের বলে প্রথম ওভারেই বাউন্ডারি হাঁকিয়ে আক্রমণাত্বক শুরুর ইঙ্গিত দেন রোহিত। যদিও জস হ্যাজেলউডের করা দ্বিতীয় ওভারের ৫ বল দেখেশুনে খেলার পরেই বাগড়া দেয় নির্দয় বৃষ্টি।

দিনের শুরুতে দলীয় ২১ রান নিয়ে মাঠে নামেন দুই অজি ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার ও মার্কাস হ্যারিস। ইনিংসের ২৫তম ওভারে হ্যারিসকে ঋষভ পান্তের ক্যাচ বানিয়ে প্রথম ধাক্কা দেন তৃতীয় দিনের ব্যাট হাতের নায়ক শার্দুল ঠাকুর। ঠিক ৬ বল পরেই ওয়াশিংটন সুন্দরের বলে এলবিডব্লিউ এর ফাঁদে পড়েন ওয়ার্নার।

প্রথম ইনিংসের সেঞ্চুরিয়ান মার্নাস লাবুশেন শুরু থেকেই টি-টোয়েন্টি মেজাজে খেলছিলেন। কিন্তু মোহাম্মদ সিরাজের লাফিয়ে ওঠা বলে স্লিপে রোহিতের ক্যাচ হয়ে ২২ বলে ২৫ রান করে সাজঘরে ফেরেন তিনি। এরপর ম্যাথু ওয়েডও সিরাজের বলে শূন্য হাতে ফিরে যান।। ক্যামেরন গ্রিনকে সঙ্গে নিয়ে এরপরেও লড়াই চালিয়ে যাচ্ছিলেন স্টিভেন স্মিথ। কিন্তু ৭ বাউন্ডারিতে ৫৫ রান করা স্মিথকেও বিদায় করে ৭৩ রানের জুটি ভাঙেন সিরাজ। সিরাজের পরে দৃশ্যপটে বল হাতে আবারো জোড়া আঘাত হানেন শার্দুল। দলীয় ২৪২ রানে ৩৭ রান করা গ্রিনকে সাজঘরের পথ দেখান তিনি। এরপরে অজিদের ২৪২ রানের সময়ে টিম পেইনকেও একই পথ দেখান শার্দুল।

এরপরে নাথান লায়নকে নিয়ে লড়াই চালান প্যাট কামিন্স। নিয়ে দলকে তিনশো রানের কাছে নিয়ে যান কামিন্স। যদিও ইনিংসের লেজের সারি মুরিয়ে দেন সিরাজ জোড়া উইকেট নিয়ে। আর লায়নকে ফেরান শার্দুল। কিন্তু এরই মাঝে ২৯৪ রান তুলে ফেলে পেইন বাহিনী। যে কারণে সফরকারীদের সামনে লক্ষ্য দাঁড়ায় ৩২৮ রানের।

প্রথম ইনিংসে নাটারাজান-সুন্দর-শার্দুলের ছায়ায় পরে যাওয়া পেসার সিরাজ দ্বিতীয় ইনিংসে জ্বলে উঠেছেন। তৃতীয় টেস্টে খেলতে নেমে প্রথম ৫ উইকেটের স্বাদ পেয়েছেন সিরাজ। ৭৩ রানে ৫ উইকেট নিজের ঝুলিতে পুরেছেন তিনি। আরেক পেসার শার্দুল ৪ উইকেট শিকার করেন ৬১ রানের বিনিময়ে।

 

 

অর্থসূচক/এএইচআর

 

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
মন্তব্য
Loading...