ফেসবুকে ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট গ্রহণ না করায় বসকে হত্যার হুমকি

0
155

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে বন্ধুত্বের আবেদন কতটা গুরুত্বপূর্ণ হতে পারে? তা মঞ্জুর করার জন্য কি প্রাক্তন বসকে হত্যার হুমকি দেওয়া যায়? এমন কাণ্ডই ঘটিয়েছেন ২৯ বছরের যুবক কেলাব বুরসজিক। শুধু তাই নয় প্রাক্তন বসের বাড়িতে গিয়ে রীতিমতো তুলকালাম কাণ্ড করেন তিনি। ক্রমাগত লাথি মেরে দরজা ভাঙার চেষ্টাও করেন। এ ঘটনায় শেষমেশ তার ঠাঁই হয়েছে জেলে।

যুক্তরাষ্ট্রের উত্তর ডাকোটা এলাকায় ঘটেছে এই ঘটনা। স্থানীয় পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, বড়দিনের আগের রাতে প্রাক্তন বসকে ফেসবুকে ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট অর্থাৎ বন্ধুত্বের আবেদন পাঠিয়েছিলেন ২৯ বছরের ওই যুবক। কিন্তু দু’দিন কেটে যাওয়ার পরও সেই আবেদন গ্রহণ করা হয়নি দেখে তার মেজাজ বিগড়ে যায়। প্রাক্তন বসকে মেসেঞ্জার ও স্ন্যাপচ্যাটের মাধ্যমে হুমকি দিতে থাকেন তিনি। ক্রমাগত নিজের ছবি পাঠাতে থাকেন। বন্ধুত্বের আবেদন গ্রহণ না করলে প্রাক্তন বসকে হত্যার হুমকিও দেন।

এত কিছু করার পরও কোন লাভ হচ্ছে না দেখে সোজা প্রাক্তন বসের বাড়িতে পৌঁছে যান কেলাব। সেখানে লাথি মেরে ওই ব্যক্তির দরজা ভাঙার চেষ্টা করেন। চিৎকার করে হুমকি দিতে থাকেন। ফেসবুকে ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট একসেপ্ট করার দাবি জানাতে থাকেন। এরপরই পুলিশকে খবর দেন কেলাবের প্রাক্তন বস। পুলিশ এসে তাকে গ্রেপ্তার করে।

পুলিশ জানান, নেশায় আসক্তি রয়েছে ২৯ বছরের যুবকের। এর আগেও চুরির অভিযোগ রয়েছে তার বিরুদ্ধে। সম্ভবত নেশার টাকা জোগাড় করতেই চুরি করেছিলেন তিনি। কিন্তু আচমকা প্রাক্তন বসের ভারচুয়াল বন্ধুত্ব তার কাছে কেন এত গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠল? তা জানার চেষ্টা করছে মার্কিন পুলিশ। আপাতত যুবককে পুলিশি হেফাজতেই রাখা হয়েছে। দফায় দফায় জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে।

অর্থসূচক/কেএসআর