পেঁয়াজ আমদানিতে ৫ শতাংশ শুল্ক আরোপের প্রস্তাব

পেঁয়াজ আমদানিতে ৫ শতাংশ হারে শুল্ক আরোপের প্রস্তাব করে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডকে (এনবিআর) চিঠি দেওয়া হয়েছে। বাণিজ্য মন্ত্রণালয় থেকে গতকাল সোমবার এই চিঠি পাঠানো হয়েছে। শুল্কহার কত নির্ধারণ করা হবে এবং কবে থেকে তা কার্যকর করা সম্ভব হবে, তা আজ মঙ্গলবার খতিয়ে দেখবে এনবিআর।

অভ্যন্তরীণ চাহিদার উল্লেখ করে ভারত গত বছরের ১৪ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশে পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ করে দেয়। এতে পেঁয়াজভর্তি ২৫০টির বেশি ট্রাক আটকা পড়ে সীমান্তের ওপারে বিভিন্ন স্থলবন্দরে। নিষেধাজ্ঞার আগে এলসি খুলেও অনেক ব্যবসায়ী পেঁয়াজ আমদানি করতে ব্যর্থ হন। এরপর ১৯ সেপ্টেম্বর বিশেষ বিবেচনায় আগের দরপত্র অনুযায়ী ১১টি ট্রাকে ২৪৬ টন পেঁয়াজ ভারত থেকে বাংলাদেশে আনা হয়।

গত শনিবার আবার ভারত থেকে পেঁয়াজ আমদানি শুরু হয়েছে। প্রতিবেশী দেশটি থেকে গত দুই দিনে ৩১টি ট্রাকে ৮০০ টন পেঁয়াজ দেশে এসেছে। এতে আগে আমদানি করা পেঁয়াজের দর কমে অর্ধেকে নেমে এসেছে। এই অবস্থায় বাজার স্থিতিশীল রাখতে এরই মধ্যে যেসব ব্যবসায়ী বিভিন্ন দেশ থেকে পেঁয়াজ আমদানি করেছেন, তাদের লোকসানের শঙ্কা তৈরি হয়েছে। আমদানিকারকদের এই লোকসান ঠেকাতেই মূলত বাণিজ্য মন্ত্রণালয় পেঁয়াজ আমদানিতে ৫ শতাংশ শুল্ক আরোপের প্রস্তাব করেছে।

অর্থসূচক/এমএস

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
মন্তব্য
Loading...