১০ মিনিট অচল রংপুর

0
53
Rangpur Gass Andolon

‘বৃহত্তর রংপুর গ্যাস আন্দোলন কমিটি’র আহ্বানে বৃহস্পতিবার সকাল ১১টা থেকে ১১টা ১০ মিনিট পর্যন্ত সকল শ্রেণি পেশার মানুষ যে যেখানেই ছিলেন, সেখানেই দাঁড়িয়ে ও বসে থেকে স্তব্ধ হয়ে এই কর্মসূচি পালন করে। এতে পুরো নগরী থমকে যায়। বন্ধ হয়ে যায় সব কর্মস্থলের কার্যক্রম। অচল হয়ে পড়ে রংপুর।Rangpur Gass Andolon

মহানগরীর প্রেসক্লাব চত্বরে সকাল ১১টায় বৃহত্তর রংপুর গ্যাস আন্দোলন কমিটির আহ্বায়ক ও সিটি মেয়র সরফুীদ্দন আহম্মেদ ঝন্টু এ কর্মসূচির উদ্বোধন করেন। এসময় পুরো নগরীতে প্রায় শতাধিক মাইকে বেজে উঠে দীর্ঘদিনের বঞ্ছনার বিষাদের সুর।

রংপুর মহানগরবাসীর সকল শ্রেণি পেশার মানুষ যে যেখানেই ছিলেন; সেখানেই দাঁড়িয়ে বা বসে স্তব্ধ হয়ে এই কর্মসূচি পালন করেন।

এতে রিকশা, বাইসাইকেল, মোটরসাইকেল, বাস-ট্রাকহ সকল পরিবহন বন্ধ হয়ে যায়। ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে বেচা-কেনা বন্ধ হয়। পথচারীরা পা বাড়ায়নি সামনের দিকে। স্কুল কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়া-লেখা বন্ধ ছিল। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের গেটে দাঁড়িয়ে শিক্ষার্থী।

কর্মসূচি শুরুর আগে গ্যাস আন্দোলন কমিটির আহ্বায়ক মেয়র সরফুদ্দিন আহম্মেদ ঝন্টু বলেন, গ্যাস না থাকার কারণে কোনভাবেই রংপুরের কঙ্খিত উন্নয়ন সম্ভব হচ্ছে না। অবহেলা আর প্রতিশ্রুতিতে রংপুরবাসীর দেয়ালে পিঠ ঠেকে গেছে। এজন্যই নগরবাসী স্বতস্ফুর্তভাবে স্তব্ধ কর্মসূচি পালন করেন।

এসময় তিনি একই দাবিতে এক ঘণ্টার গণ-অনশন কর্মসূচি ঘোষণা করেন।

রংপুর চেম্বার, জেলা ও মহানগর দোকান মালিক সমিতি, প্রেসক্লাব, রিপোর্টার্স ক্লাব, সাংবাদিকক ইউনিয়ন, বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কৃতিক, রাজনৈতিক, পেশাজীবি সংগঠন সংহতি প্রকাশ করে এই কর্মসূচিতে অংশ নেয় ।

এফএফ/সাকি