অবশেষে মুখ খুললেন শ্বেতা

0
152
swetha-basu-prasad
শ্বেতা বসু প্রসাদ- ফাইল ছবি

জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত অভিনেত্রী শ্বেতা বসুর দেহ ব্যবসায় জড়িয়ে পড়ার ঘটনায় হতবাক বলিউড-টলিউড ফিল্মি জগৎ। যদিও একাংশ আওয়াজ তুলেছেন শ্বেতার পক্ষেই। তাদের বক্তব্য, সমস্যার কথা না জেনে কোনো ব্যক্তি সম্পর্কে মন্তব্য করা উচিত নয়। তবে আটকের পর মুখ খুলেছেন শ্বেতা।

ভারতের এক বার্তাসংস্থা এ তথ্য জানিয়েছে।

শ্বেতার খবরটি প্রকাশ হতেই হই চই পড়ে যায়। বিভিন্ন মানুষ বিভিন্ন ধরণের ব্যাখ্যা শুরু করে দেন। যদিও আটকের পর অবশেষে মুখ খুলেছেন তিনি।

বিব্রত শ্বেতা এক সাংবাদিককে জানিয়েছেন, আমি নিজের জন্য ভুল পেশা বেছেছিলাম। এখন আমার হাতে টাকা নেই। আমার পরিবারের দায়িত্ব আমার উপর। চোখের সামনে সব দরজা বন্ধ হয়ে যেতে দেখেছি। টাকা রোজগারের পথ হিসেবে কয়েকজন আমাকে পতিতাবৃত্তির পথে নামতে উৎসাহ দেয়। আমি অসহায় ছিলাম। আমার কাছে আর কোনো পথ খোলা ছিল না।

পুরস্কারপ্রাপ্ত এ অভিনেত্রী জানান, আমি একমাত্র অভিনেত্রী নই যে এই চক্রের সঙ্গে জড়িত। আমার মতো আরও অনেক অভিনেত্রীই টলিউড বলিউডে রয়েছেন যারা দেহব্যবসার সঙ্গে জড়িত। অর্থ উপার্জনের আর কোনো পথ আমাদের কাছে খোলা নেই।

রোববার রাতে হায়দ্রাবাদের বাঞ্জারা হিলস-এর একটি হোটেলে অভিযান চালিয়ে শ্বেতাকে হাতেনাতে ধরে পুলিশ। শ্বেতার পাশাপাশি তেলেগু ফিল্ম জগতের সঙ্গে যুক্ত বেশ কিছু নামি শিল্পপতিকেও হেফাজতে নিয়েছে পুলিশ।

শ্বেতা বসুর নামে মামলা দায়ের করা হয়েছে। এরামাঞ্জিল আদালত পাঞ্জাগুত্তা পুলিশকে নির্দেশ দিয়েছে যাতে শ্বেতাকে সরকারি পুনর্বাসন কেন্দ্রে পাঠানো হয়।

এএসএ/