রাঙামাটিতে সাবেক ইউপি সদস্যকে গুলি করে হত্যা

0
50
rangmati
রাঙ্গামাটি- ফাইল ছবি
rangmati
রাঙ্গামাটি- ফাইল ছবি

রাঙামাটির নানিয়ারচর উপজেলায় শান্তি কুমার চাকমা (৬২) নামের সাবেক এক ইউপি সদস্য ‘দুর্বৃত্তদের গুলিতে’ নিহত হয়েছেন।

শনিবার গভীর রাতে উপজেলার ঘিলাছড়ি ইউনিয়নের রামহরি পাড়ায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহত শান্তিকে নিজেদের সমর্থক দাবি করেছেন সন্তু লারমার দল পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি। এ ঘটনায় সমিতির পক্ষ থেকে ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্টকে (ইউপিডিএফ) দায়ী করা হয়েছে। তবে ইউপিডিএফ হত্যাকাণ্ড সংশ্লিষ্টতার কথা অস্বীকার করেছে।

ঘিলাছড়ি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান অমর জীবন চাকমা জানান, শনিবার রাতে শান্তি চাকমাকে কে বা কারা বাড়ির বাইরে ডেকে নিয়ে যায়। বাসা থেকে কিছু দূরে নিয়ে গিয়ে তাকে গুলি করে হত্যার পর রাস্তায় লাশ ফেলে রাখা হয়।

পরে নিহতের আত্মীয়-স্বজন ও স্থানীয়রা ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে।

পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির কেন্দ্রীয় তথ্য ও প্রচার সহ-সম্পাদক সজীব চাকমা অভিযোগ করেন, তাদের সমর্থক হওয়ায় ইউপিডিএফের কর্মীরা শান্তি চাকমাকে হত্যা করেছে।

তবে এ ঘটনায় জড়িত থাকার কথা অস্বীকার করেছেন ইউপিডিএফ সমর্থিত পাহাড়ী ছাত্র পরিষদের জেলা শাখার সভাপতি বাবলু চাকমা।

তিনি বলেন, জনসংহতি সমিতির সদস্যরা এর আগেও রামহরি পাড়ায় গিয়ে নিরীহ লোকজনকে গুলি করে হত্যা করেছে। এখন ফায়দা লোটার জন্য নিজেরাই এ ঘটনা ঘটিয়ে আমাদের দোষ দিচ্ছে।

নানিয়ারচর থানার এসআই মো. আবদুল আউয়াল জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ফোর্স রওনা হয়েছে। তবে থানা থেকে ঘটনাস্থল অনেক দূরে বলে পৌঁছাতে দেরি হচ্ছে।

এএসএ/