ব্লু ইকোনোমিতে বেসরকারি খাতকে এগিয়ে আসার আহ্বান

0
44
Foreign Minister Abul hasan Mahmud Ali2
মঙ্গলবার রাজধানীর বিনিয়োগ বোর্ড মিলনায়তনে ‘ব্লু ইকোনোমি’ বিষয়ক গোলটেবিল বৈঠকে পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবু হাসান মোহাম্মদ আলী বলেন, দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নের জন্য ব্যাংকের ওপর হামলা থামাতে হবে। এভাবে ব্যাংক লুটপাট হলে দেশে বিনিয়োগ বাড়বে না।

Foreign Minister Abul hasan Mahmud Ali2
মঙ্গলবার রাজধানীর বিনিয়োগ বোর্ড মিলনায়তনে ‘ব্লু ইকোনোমি’ বিষয়ক গোলটেবিল বৈঠকে পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী।

মঙ্গলবার রাজধানীর বিনিয়োগ বোর্ড মিলনায়তনে ‘ব্লু ইকোনোমি’ বিষয়ক গোলটেবিল বৈঠকে তিনি এই কথা বলেন। এতে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন রিয়ার অ্যাডমিরাল খুরশেদ আলম।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবু হাসান মোহাম্মদ আলী বলেন, শিল্প সৃষ্টিতে সহজ শর্তে ঋণ নেওয়া যায়। তবে এর জন্য নিয়ম মেনে সরকারের কাছে আবেদন করতে হবে।

ব্লু ইকোনোমি বিষয়ে তিনি বলেন, সাগর তলদেশে সম্পদে অপার সম্ভাবনা রয়েছে। সমুদ্রের সম্পদের উৎসগুলো ব্যবহারে দেশের বেসরকারি খাতকে মূল ভূমিকা পালন করতে হবে। সাগরের সম্পদগুলোকে কাজে লাগাতে হবে।

মূল প্রবন্ধে বলা হয়, আর্ন্তজাতিক পর্যায়ে সমুদ্র ও সমুদ্র সম্পদ কাজে লাগিয়ে উপকূলীয় দেশগুলো অর্থনৈতিক উন্নয়নে নতুন দ্বার উন্মোচিত হয়েছে। যার মাধ্যমে দারিদ্র বিমোচন, খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণতা অর্জন পরিবেশ ভারসাম্য রক্ষা ও জলবায়ু পরিবর্তনে ভূমিকা রেখেছে।

জ্বালানি উপদেষ্টা ড. তৌফিক-ই-ইলাহী চৌধুরী বলেন, সমুদ্র সম্পদ নিয়ে নতুন প্রজন্মের মাঝে সচেতনতা বাড়ছে। এখন বিষয়টির ওপর অধ্যায়নও হচ্ছে। তাই এই সুযোগগুলোকে এখনই কাজে লাগানো দরকার। এর জন্য সমন্বিত পরিকল্পনা ও গভীর গবেষণা প্রয়োজন।

বিসিআই সভাপতি এ.কে. আজাদ বলেন, দেশের বেসরকারি খাত এগিয়ে আসলে ব্লু ইকোনমি গড়ে ওঠবে। এর জন্য সহজ শর্তে ঋণ সহায়তা দরকার। ১৪-১৮ শতাংশ সুদ দিয়ে এই খাতে বিনিয়োগ করা সম্ভব নয়।

এছাড়া গ্যাসের অভাবে দেশের ২০ লাখ লোকের কর্মসংস্থান হচ্ছে না বলে জানান তিনি।

বিল্ডের প্রধান নির্বাহী ফেরদৌস আরা বেগম বলেন, সমুদ্র সম্পদ ব্যবহারে সুনির্দিষ্ট গাইড লাইন দরকার। এই সম্পদকে কাজে লাগালে দেশ অর্থনীতি এগিয়ে যাবে। এর জন্য মেরিন বিষয়ে উচ্চ শিক্ষা ও গবেষণা দরকার। অর্থনৈতিক উৎস, মৎস্য গবেষণা কেন্দ্র, সক্ষমতা বৃদ্ধি, বিনিয়োগ ও সমন্বিত প্রচেষ্টা প্রয়োজন।

বক্তারা আরও বলেন, দক্ষ জনবল, উন্নত প্রযুক্তি ও যন্ত্রপাতির অভাবে বাংলাদেশে ব্লু ইকোনোমির (সাগরতলের সম্পদ) সুযোগ ভালোভাবে ব্যবহার করা যাচ্ছে না। এই খাতে বিনিয়োগের জন্য সক্ষমতা বাড়িয়ে বেসরকারিখাতকে এগিয়ে আসতে হবে।

বিনিয়োগ বোর্ডের নির্বাহী চেয়ারম্যান ড.এস.এ. সামাদের সভাপতিত্বে বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন নির্বাহী সদস্য দিলীপ কুমার দাস, বিকিএমইএ সহ-সভাপতি মোহাম্মদ হাতেম, সাবেক জ্বালানি সচিব মোশারফ হোসেন ভূঁইয়া।

এমই/