‘২০১৯ সালের আগেই জাতীয় নির্বাচন’

0
61
Fakrul
বুধবার সকালে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে ‘মিট দ্য রিপোর্টার্স’ অনুষ্ঠানে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ৫ জানুয়ারির নির্বাচনে জনগণ অংশ নেয়নি। বিশ্বও তা সমর্থন করেনি। আশা করি, ২০১৯ সালের আগেই সবার অংশগ্রহণে অবাধ ও গ্রহণযোগ্য জাতীয় নির্বাচন হবে; সংলাপও হবে।

Fakrul
বুধবার সকালে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে ‘মিট দ্য রিপোর্টার্স’ অনুষ্ঠানে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

বুধবার সকালে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে ‘মিট দ্য রিপোর্টার্স’ অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

সরকার পতনে বিএনপির টাইমফ্রেম আছে কি না- জানতে চাইলে মির্জা ফখরুল বলেন, সময় নির্ধারণ করে সরকার পতন হয় না। মানুষ যত দ্রুত সংগঠিত হবে ওরাস্তায় নামবে, তত দ্রুত সরকার পতন হবে। বিএনপি কোনো ট্রাম কার্ডে বিশ্বাস করে না।

অপর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের নেতারা বলছেন, সংলাপ হবে না। কিন্তু তাদের সংলাপ করতেই হবে। তারা আগেও বলেছিলেন, সংলাপ করতে হলে জামায়াতকে বাদ দিতে হবে। জামায়াত বিএনপির সঙ্গে থাকা অবস্থায়ও আওয়ামী লীগের সঙ্গে সংলাপ হয়েছে। প্রয়োজনের সময় নিঃসন্দেহে আলোচনা হবে।

মির্জা ফখরুল বলেন, বিএনপি আন্দোলনে যেতে চায় না। আলোচনার মাধ্যমেই সমস্যার সমাধান হোক, এটাই চাই।

আন্দোলন প্রসঙ্গে তিনি বলেন, গাড়ি চলার সময় ধারাবাহিকভাবে ফার্স্ট গিয়ার, সেকেন্ড গিয়ার, টপ গিয়ারে যায়। এটা আন্দোলনেরও বিজ্ঞান। বিএনপির আন্দোলনও তীব্র আকার ধারণ করবে।

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব বলেন, জাতিসংঘের বিশেষ দূত বাংলাদেশ সফরে দুই দলের সঙ্গেই বৈঠক করেছিলেন। তখন আওয়ামী লীগ বলেছিল, আলোচনার ভিত্তিতে দ্রুত জাতীয় নির্বাচন দেওয়া হবে।

সেই আলোচনার নথি সরবরাহ করা হবে কি না—এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ বিষয়টি অস্বীকার করবেই। এ ধরনের আলোচনার আসলে কোনো নথি হয় না। আলোচনায় যদি কোনো ফলাফল আসে, তখনই কেবল নথি থাকে।

এসময় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি শাহেদ চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক ইলিয়াস খান উপস্থিত ছিলেন।

এমই/