অনুপ্রবেশকারী ঠেকাতে নিবন্ধন হালনাগাদ হচ্ছে আসামে

0
70
illigal bangladeshi
ভারতে বসবাসরত বাংলাদেশি
illigal bangladeshi
ভারতে বসবাসরত বাংলাদেশি

৬০ বছরেরও বেশি সময় পর নিবন্ধন হালনাগাদ শুরু হতে চলেছে উত্তর-পূর্ব ভারতের আসামে।

ভারতের জাতীয় নাগরিক নিবন্ধন- এনআরসির বরাত দিয়ে এক খবরে শুক্রবার বিবিসি জানিয়েছে, হালনাগাদ করার জন্য ৫শো’রও বেশি কর্মী নিয়োগের বিজ্ঞাপন দিয়েছে সরকার।

প্রতিবেদনে জানানো হয়, এই নিবন্ধন হালনাগাদ না হওয়ার কারণে বহু বাংলাভাষী মুসলমানকে বাংলাদেশি অনুপ্রবেশকারী বলে চিহ্নিত হয়ে হেনস্থার শিকার হতে হয়।

প্রসঙ্গত, আসাম রাজ্যে বসবাসরত ‘অবৈধ’ বাংলাদেশিদের সংখ্যা নিরূপণে মোদির সরকার ক্ষমতায় আসার পরই এই প্রকল্প পুনরায় হাতে নেয়। সেসময় ২ বছরের মধ্যে প্রকল্পের কাজ সম্পন্ন করার জন্য আসাম রাজ্য সরকারকে ২৬৯ কোটি রুপি বরাদ্দও দেয় সরকার।

বিবিসি আরও জানায়, ভারতের জাতীয়তাবাদী দলগুলো বা বিভিন্ন মুসলিম সংগঠন – সকলেই দীর্ঘদিন ধরে নাগরিক পঞ্জী হালনাগাদ করার দাবি জানিয়ে আসছিল।

ওই সব সংগঠনের দাবি ছিল, জাতীয় নাগরিক পঞ্জী হালনাগাদ করলেই বোঝা যাবে কে বা কারা, কবে বাংলাদেশ থেকে আসামে এসেছে।

ভারতীয় জনতা পার্টি- বিজেপিরও দাবি ছিল, বাংলাদেশ থেকে ব্যাপক সংখ্যায় মুসলমানরা ভারতে অনুপ্রবেশ করছেন।

বিজেপির এক মন্ত্রী রকিবুল হোসেইন বলেন, নাগরিক পঞ্জী হালনাগাদ হলে আসামের একটা বড় রাজনৈতিক সমস্যার সমাধান করা সম্ভব।

তিনি আরও বলেন, “জাতীয় নাগরিক পঞ্জী হালনাগাদ করা হলেই রাজনৈতিক সমস্যাগুলোর সমাধান সম্ভব হবে। নাগরিক পঞ্জীর তথ্যের মাধ্যমেই আসামের জ্বলন্ত সমস্যা – বিদেশিদের সমস্যার সমাধান সম্ভব।”

এ সংক্রান্ত আরও নিউজ-

‘আসাম থেকেই শুরু বাংলাদেশি অনুপ্রবেশকারী বাছাই’

আসামে বাঙ্গালীদের বিরুদ্ধে এবার উলফার হুমকি

বাংলাদেশি শরণার্থীদের নাগরিকত্বের প্রস্তাব আসামের

এনপিআর কার্ডে বাংলাদেশি বাছাই চান রাজনাথ