বিমান তাকে নিতে রাজী নয়, ট্রেন মুখ ফিরিয়ে রাখে

0
88
Kevin_Fat

Kevin_Fatকেভিন চেনাইসের মত অভাগা কমই আছে। বাইশ বছরের এ তরুণ চিকিৎসা নিতে এসে যুক্তরাজ্যে আটকে গেছেন। ফ্রান্সে নিজ শহরে ফেরার জন্য মন কাঁদলেও তিনি ফিরতে পারছেন না। অতিরিক্ত মোটা আর বাড়তি ওজনের জন্য কোনো বিমান তাকে বহন করতে রাজী নয়। উপায় না পেয়ে ট্রেনে ফিরতে চেয়েছেন। কিন্তু ইউরো স্টার কর্তৃপক্ষও মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে। এমনকি ক ক্রুইজ নামের একটি জাহাজে কেবিন চেয়েও পাওয়া যায় নি। খবর এএফপি ও খালিজ টাইমসের।

২৩০ কেজি ওজনের কেভিন জানিয়েছেন, গত দুই সপ্তাহ ধরে তিনি দেশে ফেরার প্রাণান্ত চেষ্টা করছেন। কিন্তু একের পর এক বিমান সংস্থা তাকে বহন করতে অপারগতা জানিয়েছে।

তিনি বলেন, এটা ভয়াবহ। অনেক বেদনাদায়ক। এটা বৈষম্যপূর্। এতে শুধু আমারই কষ্ট হচ্ছে না, আমার বাবা-মায়ের কষ্টার্জিত অর্থেরও অপচয় হচ্ছে।

অবশ্য সর্শেষ ভার্ন আটলান্টিক নামের একটি বিমান সংস্থা তাকে নিউ ইয়র্ থেকে ফ্রান্সে পৌঁছে দিতে রাজী হয়েছে। এছাড়া ওঅ্যান্ডপি নামের একটি ফেরি কোম্পানি বলেছে, তারা তাকে অ্যাম্বুলেন্সে করে ফ্রান্স নিয়ে যেতে রাজী আছে

কেভিনের মা ক্রিস্টিনা চেনাইস বলেন, আমার সন্তানের হরমোনগত সমস্যা আছে। এ কারণে সে এতো মোটা। তার ওজন এত বেশি। কিন্তু এটি তো তার অপরাধ নয়। কিন্তু এ ওজনের কারণে তার সঙ্গে অমানবিক, বৈষম্যপূর্ণ আচরণ করছে সবাই।

দূর্ভাগ্যের শুরু হয় চলতি মাসের প্রথম ভাগে। বৃটিশ এয়ারওয়েজ কেভিনের ফিরতি টিকেট গ্রহণ করতে অস্বীকৃতি জানানোর পর থেকে। বৃটিশ এয়ারওয়েজের মত অভিজাত বিমান সংস্থার এমন অমানবিক কাজটি করতে এতটুকু বাঁধেনি।

এ ব্যাপারে বিমান সংস্থাটির সঙ্গে যোগাযোগ করলে তারা কোনো মন্তব্য করতে অস্বীকৃতি জানায়। ইউরো স্টার ট্রেন কর্তৃপক্ষও মুখ খোলেনি। কার্নিভাল ক্রুইজ কর্তৃপক্ষও মন্তব্য করতে রাজী হয়নি।