প্রেমের প্রস্তাব যখন বন্ধুর কাছ থেকে…

0
1861
love

বিশ্ববিদ্যালয়ের একই বিভাগে পড়েন সোহাগ ও মিশু। আস্তে আস্তে তাদের মধ্যে তৈরি হয় ভালো বন্ধুত্ব। দিন বাড়ার সাথে সাথে মিশুর প্রতি দুর্বল হয়ে পড়েসোহাগ। কিন্তু বন্ধুত্বের কারণে নানা দ্বিধায় মনের কথা বলতে পারে না সে। একদিন মনের না বলা কথাগুলো টেক্সট এ জানায় মিশুকে। বন্ধুর এমন কথায় অবাক মিশু। কী করবে বুঝে উঠতে পারে না। বন্ধুকে সে তো শুধু বন্ধু হিসেবেই চায়, আবার মুখের ওপর না করলে সোহাগ কষ্ট পাবে। ভেঙে যেতে পারে বন্ধুত্ব। সে নিজেও তার বন্ধুর ভালো চায়। তাকে হারাতে চায় না।

friendship
বন্ধুত্ব (ফাইল ছবি)

শুধু সোহাগ-মিশুই নয় এমন ঘটনার সম্মুখীন হন অনেকেই। এ প্রসঙ্গে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের মনোবিজ্ঞান বিভাগের প্রফেসর ড. মজিবুল হক আজাদ খান বলেন, ‘বন্ধু তো জীবনে অন্যতম নিরাপদ আশ্রয়স্থল। বন্ধুত্বকে ছাপিয়ে ভালো লাগা তৈরি হলে তখন উভয় পক্ষেরই বিষয়টি গ্রহণ ও মোকাবেলা করার মানসিক প্রস্তুতি হয়ত অনেক সময় থাকে না। তবে এরকম পরিস্থিতিতে বন্ধুর যেকোনো সিদ্ধান্তের প্রতি সম্মান রেখে বন্ধুত্বের সম্পর্ক বজায় রাখাটা ভালো।

বন্ধুর প্রেমে যদি পড়েই থাকেন তাহলে কি করবেন? জানাচ্ছে অর্থসূচক

বোঝাপড়া করুন নিজের সঙ্গেই

বন্ধুর প্রেমে পড়লে প্রথমেই প্রয়োজন মানসিক প্রস্তুতির। আগে নিজের সঙ্গে বোঝাপড়া করতে হবে আসলেই কি প্রেমে পড়েছেন নাকি সেটা শুধু মাত্র আকর্ষণ। নিজের মনের কাছে নিজে বিষয়টি নিয়ে বারবার প্রশ্ন করুন। প্রস্তাবটি যদি দিয়েই থাকেন তবে মনে রাখতে হবে যে, তাঁর ব্যক্তিস্বাধীনতা আছে। তিনি প্রেমিক বা প্রেমিকা হিসেবে আপনাকে নাও মানতে পারেন। এটি মেনে নেওয়ার জন্য মানসিক প্রস্তুতি থাকতে হবে।

প্রস্তাব দিন কৌশলে

বন্ধুকে প্রেমের প্রস্তাব দিন খুব কৌশলে। এমন ভাবেই প্রেমের প্রস্তাব দেয়া উচিত যেন বন্ধুত্বটি ভেঙে না যায়। জীবন সঙ্গী এবং বন্ধু হিসেবে আপনার হাত ধরে সারাজীবন কাটানোর প্রস্তাবটা সুন্দর করে উপস্থাপন করুন তার সামনে।

জোর খাটাবেন না

প্রত্যেক মানুষই আলাদা সত্ত্বার।প্রত্যেকের নিজের ইচ্চা-অনিচ্ছা আছে। তাই আপনার বন্ধুর ওপর কোনো ভাবেই জোর খাটাবেন না। আপনার দেওয়া প্রেমের প্রস্তাব যদি তার পছন্দ না হয় তাহলে তার অধিকার আছে সেটা ফিরিয়ে দেওয়ার। বন্ধুত্বের দোহাই দিয়ে মানসিক দুর্বলতার সুযোগ নেয়া উচিত না। আপনাকে তার পছন্দ হলে জোর খাটানো ছাড়াই সে এমনিতেই আপনার প্রস্তাব গ্রহণ করবে।

তার সিদ্ধান্তকে সম্মান জানান

আপনার বন্ধুটি আপনার প্রেমের প্রস্তাব ফিরিয়ে দিলে তার সিদ্ধান্তের প্রতি সম্মান রাখুন। বন্ধুত্বটা অটুট রাখার জন্য কিছুটা কষ্ট হলেও এটা আপনাকে করতেই হবে। বন্ধু প্রেমের প্রস্তাব ফিরিয়ে দিলে তাকে বুঝিয়ে বলুন যে আপনি ঠিক আছেন এবং আপনাদের বন্ধুত্বটাও আগের মতই থাকবে। নিজের অপারগতার কথা হঠাৎ করেই রূঢ়ভাবে প্রকাশ না করে বা তাঁকে এড়িয়ে না গিয়ে স্বাভাবিক থাকতে হবে।বন্ধুটিকে সময় দিন আগের মতই। তবে এক্ষেত্রে শুধু দুজন একসঙ্গে না থেকে অন্য বন্ধুদের সঙ্গে সময় কাটাতে পারেন।

বিষয়টিকে সহজভাবে নিন

আপনি যদি আপনার বন্ধুটিকে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে প্রত্যাখ্যাত হয়ে থাকেন তাহলে পরবর্তিতে সেটাকে হাসি ঠাট্টা করে উড়িয়ে দেয়াই ভালো। বন্ধুর ভালোর জন্য সব বন্ধু মিলে আলোচনা করতে পারেন। বন্ধুদের আড্ডায় কিংবা তার সাথে কথা বলার সময় খুব হালকা ভাবেই বলতে পারেন ‘তুই তো আমাকে পাত্তাই দিলি না’। আপনি সহজ স্বাভাবিক ভাবে বিষয়টিকে হালকা ভাবে হাসি ঠাট্টা করে উপস্থাপন করলে আপনার বন্ধুটিও স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করবে আপনার সাথে কথা বলতে।

দ্বিতীয়বার প্রস্তার দেওয়া থেকে বিরত থাকুন

বন্ধুকে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে একবার প্রত্যাখ্যাত হলে পুনরায় প্রস্তাব দেওয়ার মত ভুল করবেন না। কারণ পুনরায় প্রস্তাব দিলে বন্ধুত্ব নিশ্চিত ভাবেই ভেঙ্গে যাবে। আর আপনার বন্ধুটি যদি আপনাকে ভালোবেসেই ফেলে তাহলে এবার সেই ভালোবাসার ইঙ্গিত দিবে আপনাকে।

ইউএম/