সার্কিটব্রেকারের নতুন নির্দেশনা জারি

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানির শেয়ারের সার্কিটব্রেকার তথা মূল্য উঠা-নামার নতুন সীমা বেঁধে দেওয়া হয়েছে। ফলে আগামী রোববার ২০ জুন থেকে কোনো শেয়ারের মূল্য একদিনে ওই সীমার চেয়ে বাড়তে পারবে না, একইভাবে কমতেও পারবে না। তবে নিয়ম অনুসারে, লভ্যাংশ সংক্রান্ত ঘোষণার পরবর্তী কার্যদিবসে এই সার্কিটব্রেকার প্রযোজ্য হবে না।

আজ বৃহস্পতিবার (১৭ জুন) পুঁজিবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) সার্কিটব্রেকারের নতুন সীমা বেঁধে দিয়ে একটি নির্দেশনা জারি করেছে।

বিএসইসি সূত্রে এই তথ্য জানা গেছে।

নতুন নির্দেশনা অনুসারে, কোনো কোম্পানির শেয়ারের দাম ২০০ টাকার নিচে থাকলে একদিনে সেটির মূল্য ১০ শতাংশ পর্যন্ত বাড়তে বা কমতে পারবে।

শেয়ারের দাম ২০০ থেকে ৫০০ টাকার মধ্যে থাকলে সার্কিট ব্রেকার হবে ৮ দশমিক ৭৫ শতাংশ।

শেয়ারের দাম ৫০০ থেকে ১০০০ টাকার মধ্যে থাকলে সার্কিট ব্রেকার হবে ৭ দশমিক ৭০ শতাংশ।

যদি শেয়ারের দাম ১০০০ থেকে ২০০০ টাকা হয়, তাহলে শেয়ারের দাম ৬ দশমিক ২৫ শতাংশ পর্যন্ত বাড়তে বা কমতে পারবে।

>> শেয়ার বা ইউনিটের দাম ২০০০ থেকে ৫০০০ হাজার টাকার ক্ষেত্রে সার্কিট ব্রেকার ৫ শতাংশ।

শেয়ারের দাম ৫০০০ টাকার ওপরে হলে সার্কিট ব্রেকার হবে ৩ দশমিক ৭৫ শতাংশ।

এ বিষয়ে বিএসইসির নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র মোহাম্মদ রেজাউল করিম অর্থসূচককে বলেন, বিনিয়োগকারীদের স্বার্থে এটা করা হয়েছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •   
  •