এই শীতে গরম পানি,জেনে নিন গিজারের দাম
শনিবার, ১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » লাইফস্টাইল

এই শীতে গরম পানি,জেনে নিন গিজারের দাম

Gizerশীত এসেছে। প্রকৃতির পরতে পরতে তার ছোঁয়া।চারদিকে হিমেল বাতাস। শীতে সকালের নরম রোদ বেশ উপভোগ্য হলেও যন্ত্রণাও কম নয়। বিশেষ করে শিশু ও প্রবীণদের জন্য। তাছাড়া অনেকেরই আছে অ্যাজমাসহ নানা রোগ। শীতের কনকনে ঠান্ডা পানি আর বাঘের সাক্ষাত তাদের কাছে যেন একই রকম।

শীতের এ দুযোগে তাদেরকে একটি স্বস্তি দিতে পারে গরম পানির সহজ ব্যবস্থা। আর এটি হতে পারে গিজারের মাধ্যমে। আজ আপনাদের জন্য আমরা নিয়ে এসেছি গিজারের নানা খোঁজখবর। রাজধানীর ইলেক্ট্রনিক্সের শো-রুমে এসেছে পানি গরম করার আধুনিক মেশিন গিজার। যা দিয়ে অনায়াসে আপনার বাসার পানিকে গরম করে নিতে পারবেন।

যে সব দোকানে পাবেনঃ

রাজধানীর স্টেডিয়াম মার্কেট ও ঢাকা শহরের বড় বড় ইলেক্ট্রনিক দোকানে পাবেন এসব গিজার। বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়াম মার্কেটের সেঞ্চুরী ইলেক্ট্রনিক্স, এ্যাপোলো ইলেক্ট্রনিক্স, সম্রাট ইলেক্ট্রনিক্স, বিউটি ইলেক্ট্রনিক্স, বেঙ্গল ইলিক্ট্রনিক্স, নিউ বেঙ্গল ইলেক্ট্রনিক্স, অবরণী ইলেক্ট্রনিক্স, জিএমজি ইলেক্ট্রনিক্সসহ রাজধানীর বিভিন্ন ইলেক্ট্রনিক্স শো-রূমে পাওয়া যাবে এই গিজার। হিটার শো-রূম কিংবা ফুটপাতের বিভিন্ন দোকানেও পেতে পারেন ।

গিজারের ব্যবহারঃ  

আপনার ফ্লাটের পানি গরম পেতে চাইলে আপনার টয়লেটের ফলস ছাদে এই গিজার ফিট করতে হবে। গোসল করার পূর্বে গিজার চালু করার ১০ মিনিট পর গোসল করতে পারবেন। অবশ্য গিজার চালু করার পর পরিমান মত গরম হলে অটোমেটিক ভাবে গিজার অফ হয়ে যাবে।

 গিজারের দর-দামঃ

লোকাল গিজার ৪৫ লিটির ৩ হাজার ৫০০ টাকা, ৬৫ লিটার ৩ হাজার ৮০০ টাকা, ৯০ লিটার ৫ হাজার ২০০ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে।

ব্রান্ডেড এরিস্টোন ৪৫ লিটার মাপের গিজার ৪ হাজার টাকা,৬৭ লিটার মাপের গিজার ৪ হাজার ৮০০ টাকা,৯০ লিটার পরিমাপের গিজার ৫ হাজার ৫০০ টাকা,২০০ লিটার পরিমাপের গিজার ৩৪ হাজার,৩০০ লিটার পরিমাপের গিজার ৪২ হাজার টাকা,৪০০ লিটার পরিমাপের গিজার ৫২ হাজার টাকা,৬০০ লিটার পরিমাপের গিজার ৬২ হাজার টাকা,৭০০ লিটার পরিমাপের গিজার ৭২ হাজার টাকা, ৮০০ লিটার পরিমাপের গিজার ৮২ হাজার টাকা,৯০০ লিটার পরিমাপের গিজার ৯২ হাজার এবং ১ হাজারপরিমাপের গিজার ৯৫ হাজার টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে।
এ ছাড়া ইন্ডিয়ান ইনেসন্ট বাজাজ ৭ হাজার ৫০০ টাকা, কোরিয়ান হুন্দাই ৯ হাজার টাকা, সেনবো তুর্কি ১২ হাজার টাকায় কিনতে পারবেন।

রিলান্স ইলেক্ট্রনিকের রিলান্স গিজার ৪৫ লিটার ৩ হাজার ৮০০ টাকা, ৬৭ লিটার ৪হাজার ৫০০ টাকা, ৯০ লিটার ৬ হাজার টাকা টাকায় কিনতে পারবেন।

হামাডা ব্রান্ডের ৩০ লিটার গিজার ৮ হাজার ৫০০ টাকা, ৪০ লিটার ৯ হাজার ৫০০ টাকা, ৫০ লিটার ১০ হাজার ৫০০ টাকা, ৬০ লিটার ১১ হাজার ৫০০ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে।

ফ্যামাস ব্রান্ডের গিজার ৪৫ লিটার ৩ হাজার ৮০০ টাকা, ৬৮ লিটার  ৪ হাজার ২০০ টাকা, ৯০ লিটার ৬ হাজার টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে।

আসিস ব্রান্ডের গিজার ৩০ লিটার ৮ হাজার ৫০০ টাকা, ৫০ লিটার ১০ হাজার ৫০০ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে।

এ ছাড়া বাজারে আরও পাওয়া যাবে সেঞ্চুরী,জিএমজি,জেআরসি,বিউটিসহ নানা ব্রান্ডের গিজার পাওয়া যাবে।

পানি গরমের হিটারঃ

বাজারে আরেকটি ইলেক্ট্রিক যন্ত্র পাওয়া যাবে হিটার। এটা দিয়ে চাইলে পানি গরম করতে পারেন। তবে এতে আপনার খরচ পড়বে খুবই কম। এই হিটারের দাম মাত্র ৩০০ টাকা থেকে ৩৫০ টাকা।

গ্যারান্টি-ওয়ারেন্টিঃ

প্রত্যেকটি গিজার রয়েছে ২ বছরের গ্যারান্টি কিংবা ওয়ারিন্টি। তবে হামাডা কোম্পানি গিজারের মেশিনের ১ বছর গ্যারান্টির এবং বডির ৫ বছর গ্যারান্টির কথা জানিয়েছে। তারা আরো জানিয়েছেন যে কোনো সমস্যায় তারা গ্রাহকের সেবা দিতে প্রস্তুত।

বিক্রতাদের বক্তব্যঃ

সেঞ্চুরী ইলেক্ট্রনিক্সের ম্যানেজার মো. পলাশ অর্থসূচককে বলেন,  এখনও তেমন ঠান্ডা পড়েনি তাই চাহিদা কম বলে বেচা-বিক্রি কম।

তিনি আরও বলেন,  তার উপর আবার হরতাল-অবরোধে মানুষ ঘর থেকে বের হতে পারে বিধায় বেচা-বিক্রি কম।

তিনি বলেন, আমাদের নিজেস্ব ব্রান্ডের গিজার অনেক ভাল। গিজারের যন্ত্রপাতি সব বিদেশ থেকে এনে আমরা ফিটিং করে থাকি। এর গুনগত মান অনেক ভাল।

তিনি বলেন, এখান থেকে গিজার কিনে কোন রকম ভাবনা না করে ব্যবহার করতে পারবে। আমাদের গিজারেও ২ বছরের গ্যারান্টি রয়েছে।

নিউ বেঙ্গল ইলেক্ট্রনিক্সের সিইও ফারহান ইউসুফ মামুন অর্থসূচককে বলেন, হরতাল অবরোধের কারণে বেচা-বিক্রি নেই। গিজার এখনো তেমন বিক্রি হচ্ছে না।

তিনি বলেন, আমাদের শো-রূমের গিজারে গুনগত মান অনেক ভাল। কেউ যদি ফিটিং করাতে চায় আমরা তার বাসায় গিয়ে ফিটিং করার ব্যবস্থা করে দিব।

তিনি বলেন, আমাদের প্রত্যেকটি গিজারে ২ বছরের গ্যারান্টি আছে। দু বছরে কিছু হলে আমরা তা পরিবর্তন করে দিব।

এসএস/

 

 

 

 

এই বিভাগের আরো সংবাদ