শৈলকুপায় গ্রামবাসীর সংঘর্ষে আহত ১৫

0
93
Jinaidah_map
ঝিনাইদাহের মানচিত্র
Jinaidah_map
ঝিনাইদাহের মানচিত্র

ঝিনাইদহের শৈলকুপায় দুদল গ্রামবাসীর সংঘর্ষে অন্তত ১৫ জন আহত হয়েছে। প্রেমিকের সাথে এক মাদ্রাসা ছাত্রীর পালিয়ে যাওয়ার ঘটনাকে কেন্দ্র করে বুধবার সকালে উপজেলার তেঘরিয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

আহতদের ঝিনাইদহ ও শৈলকুপা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। উপজেলার ৬নং সারুটিয়া ইউনিয়নের তেঘরিয়া গ্রামের আব্দুর রশিদের মেয়ে পালানোর গুজবকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ সময় কয়েকটি বাড়িঘর ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে।

এলাকাবাসী জানায়, সকাল ১০টার দিকে তেঘরিয়া গ্রামের আব্দুর রশিদের মেয়ে নাদপাড়া দাখিল মাদ্রাসার ছাত্রী পালানোর গুজব ছড়িয়ে পড়ে। এ নিয়ে একই গ্রামের একব্বরের মেয়ে আকলিমাকে সন্দেহ করে ডেকে এনে জিজ্ঞাসাবাদ করলে উভয় পরিবারের মধ্যে কথাকাটাকাটি হয়। পরে বুধবার সকালে উভয় পক্ষ গ্রাম্য অস্ত্র-সস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। সংঘর্ষে জিয়া, আল-আমিন, ইদ্রিস আলী, বছির, মনিরুল, মোহাম্মাদ, তোজাম্মেল, নাজমূল, আনছার, শহিদুল, বাদশা, নাছির ও মোমিনসহ অন্তত ১৫ জন আহত হয়েছে।

শৈলকুপা থানার ভারপ্রপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইকবাল বাহার চৌধুরী জানান, তেঘরিয়া গ্রামে এক মাদরাসা ছাত্রী বাড়ি থেকে পালানোর গুজব ছড়িয়ে পড়ায় দুগ্রুপে সংঘর্ষ হয়েছে এবং বাড়িঘর ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে। বর্তমানে এলাকার পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে।

সাকি/