সংবাদ প্রকাশ করলে গুগল-ফেসবুককে টাকা দিতে হবে

0
298

প্রস্তাব পাস হলে অস্ট্রেলিয়া সরকারের এই খসড়া বিলই হবে বিশ্বের প্রথম এমন আইন৷ দেশটির সরকার বলছে, এর ফলে অনলাইন বিজ্ঞাপনের বাজারে বৈষম্য দূর হবে৷ যদিও ফেসবুক এর প্রতিবাদ জানিয়েছে৷

ফেসবুক ও গুগলে বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমের সংবাদ প্রকাশ করে সেগুলোতে বিজ্ঞাপনও দেয়৷ কিন্তু সেই বিজ্ঞাপনের অর্থ সংবাদমাধ্যমগুলো সঠিকভাবে পায় না৷ এমন বৈষম্য দূর করতেই এই আইন৷ নিজেদের প্ল্যাটফরমে সংবাদ প্রকাশ করলে সংশ্লিষ্ট সংবাদ সংস্থাকে তাদের সাংবাদিকতার জন্য টাকা দিতে হবে৷

ফেসবুক ও গুগলের মতো টেক জায়ান্টদের বাধ্য করতে এমন বিল উত্থাপিত হয়েছে অস্ট্রেলিয়ার পার্লামেন্টে৷ পার্লামেন্টের কোষাধ্যক্ষ জশ ফ্রাইডেনবার্গ এক বিবৃতিতে বলেছেন, এই আইন ডিজিটাল প্ল্যাটফরম ও সংবাদ মাধ্যমের মধ্যে ক্ষমতার ভারসাম্য প্রতিষ্ঠা করবে৷ এই আইনের নাম দেয়া হয়েছে নিউজ মিডিয়া অ্যান্ড ডিজিটাল প্ল্যাটফরমস মেন্ডেটরি বারগেইনিং কোড৷ এই আইনের মাধ্যমে অস্ট্রেলিয়ার সংবাদমাধ্যম এবং টিভি চ্যানেলগুলোর সঙ্গে আর্থিক চুক্তি করতে উৎসাহিত করা হবে বিভিন্ন টেক জায়ান্টকে৷

যদি তারা নিজেরা এমন চুক্তিতে একমত হতে না পারে, তাহলে একজন স্বাধীন মধ্যস্থতাকারীর মাধ্যমে অর্থের পরিমাণ নির্ধারণ করা হবে৷ আইন না মানলে এক কোটি অস্ট্রেলিয়ান ডলার (প্রায় ৬৩ কোটি বাংলাদেশি টাকা) পর্যন্ত জরিমানার বিধান রাখা হয়েছে আইনে৷ শুরুতে রাষ্ট্রায়ত্ত্ব সংবাদ মাধ্যমগুলোকে বাদ দেয়া হলেও এখন খসড়ায় সেগুলোকেও অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে৷

আপাতত খসড়া আইনে কেবল ফেসবুক নিউজ ফিড এবং গুগল সার্চকে অন্তর্বুক্ত করা হয়েছে৷ তবে পরবর্তীতে অন্য কোনো প্ল্যাটফ্রম একইভাবে শক্তিশালী হয়ে উঠলে তাদেরও এই আইনের আওতায় আনা হবে বলেও জানানো হয়েছে৷

এদিকে প্রস্তাবিত এই আইন নিয়ে শুরু থেকেই প্রতিবাদ জানিয়ে আসছে ফেসবুক৷ এমনকি অর্থ পরিশোধ করার বদলে ‘অস্ট্রেলিয়ার কোনো সংবাদ ফেসবুকে প্রকাশ করা হবে না’ এমন হুমকিও দিয়েছে তারা৷ প্রতিষ্ঠানটির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে- অস্ট্রেলিয়ার সরকার ইন্টারনেট কিভাবে কাজ করে তাই ‘ঠিকমতো বুঝতে পারছে না’৷ এই আইনে সরকার যাদের রক্ষা করতে চাচ্ছে, সেই সংবাদমাধ্যমগুলোই সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হবে বলেও মনে করছে ফেসবুক৷

ফেসবুক অস্ট্রেলিয়ার ব্যবস্থাপক উইল ইটসন খসড়া সবার জন্য উন্মুক্ত করার পর তা পড়ে প্রতিক্রিয়া জানাবেন বলে সাংবাদিকদের জানিয়েছেন৷

গুগল জানিয়েছে, এমন আইন পাস হলে তা ব্যবহারকারীদের গুগল সার্চ এবং ইউটিউব ব্যবহারের ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করবে৷ সূত্র: ডিডব্লিউ, এপি

অর্থসূচক/এএইচআর