যেখান থেকে শুরু করবেন সাকিব

0
245

দেশের ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় রোল মডেল কে? এই প্রশ্নের জবাব পেতে খুব একটা গবেষণা করতে হবে না কাউকেই। ক্রিকেটের যারা পাঁড় ভক্ত তাঁরা নির্দ্বিধায় একটি নামই উচ্চারণ করবেন। সাকিব আল হাসান। বাংলাদেশকে বিশ্ব দরবারে পরিচিত করতে অনন্য ভূমিকা পালন করেছেন সাকিব। তাই অগণিত তরুণ ক্রিকেট ভক্তদের মধ্যমণি যে তিনিই থাকবেন এতে খুব একটা অবাক হওয়ার কিছু নেই।

দেশের ক্রিকেটের পোস্টারবয় হিসেবে পরিচিত এই সাকিবই কিনা আজ থেকে এক বছর আগে এমন একটি ভুল করেছেন যার মাশুলটা বেশ বাজে ভাবেই তাঁকে দিতে হয়েছিল। ভারতের কুখ্যাত জুয়াড়ি দীপক আগারওয়ালের কাছ থেকে ফিক্সিংয়ের প্রস্তাব পাওয়ার পরও আইসিসিকে কিছু জানাননি সাকিব।

গত ওয়ানডে বিশ্বকাপের পর এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসলে সব ধরনের ক্রিকেট থেকে এক বছরের জন্য (দুই বছরের নিষেধাজ্ঞা, এক বছরের স্থগিতাদেশ) নিষিদ্ধ হতে হয় সাকিবকে। তাঁর সেই নিষেধাজ্ঞার মেয়াদই শেষ হচ্ছে আগামী ২৯ অক্টোবর অর্থাৎ আর এক দিন পর। এরপর আর ক্রিকেটে ফিরতে বাঁধা থাকবে না তাঁর।

নিষিদ্ধ হওয়ার আগে ব্যাট এবং বল হাতে দুর্দান্ত পারফরম্যান্স উপহার দিয়ে আসছিলেন সাকিব। বিশেষ করে বিশ্বকাপে নিজেকে অনন্য উচ্চতায় নিয়ে গিয়েছিলেন তিনি। টুর্নামেন্টে ৮ ম্যাচে ৮৬.৫৭ গড়ে ৬০৬ রান করেন সাকিব। যেখানে ২টি সেঞ্চুরি এবং ৫টি হাফ সেঞ্চুরি করেন তিনি। অপরদিকে বোলিংয়ে ৩৬.২৭ গড়ে ১১ উইকেট শিকার করেন দেশের ক্রিকেটের সেরা এই অলরাউন্ডার। তিন ফরম্যাটের ক্রিকেটেই নিজের কারিশমা দেখিয়েছেন সাকিব। ৫৬ টেস্টে ৩৯.৪০ গড়ে ৩ হাজার ৮৬২ রান সংগ্রহ করেছেন তিনি। যেখানে ৫টি সেঞ্চুরি এবং ২৪টি হাফ সেঞ্চুরি রয়েছে তাঁর। এই ফরম্যাটে বল হাতে ৩১.১২ গড়ে ২১০টি উইকেট শিকার করেন সাকিব।

সাকিবের ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টির পরিসংখ্যানও ঈর্ষনীয়। বাংলাদেশের হয়ে ২০৬ ওয়ানডেতে ৩৭.৮৬ গড়ে ৬ হাজার ৩২৩ রান করেছেন সাকিব। ৯টি সেঞ্চুরি এবং ৪৭টি হাফ সেঞ্চুরির মালিক তিনি ওয়ানডেতে। আর বল হাতে ২৬০ উইকেট নিয়েছেন, যেখানে বোলিং গড় ৩০.২১। আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে ৭৬ ম্যাচে এক হাজার ৫৬৭ রান রয়েছে সাকিবের। সীমিত পরিসরের এই ফরম্যাটে ৯টি হাফ সেঞ্চুরি করেছেন তিনি। একই সঙ্গে এই ফরম্যাটে তাঁর শিকার ৯২ উইকেট।

এখন প্রশ্ন হলো ক্রিকেটে ফেরার পর আগের এই ফর্ম কি ধরে রাখতে পারবেন অলরাউন্ডার সাকিব? নাকি হারিয়ে যাবেন অতল গহ্বরে? মানুষটা অন্য কেউ হলে হয়তো তাঁর ক্যারিয়ারের শেষ দেখে ফেলতেন অনেকেই। কিন্তু সাকিব বলেই হয়তো আশায় বুক বাঁধছেন দেশের ভক্ত সমর্থকরা।

 

অর্থসূচক/এএইচআর