অবসরের পর থেকেই বিষণ্ণতায় ভুগছেন জনসন

0
61

২০১৮ সালে সবধরণের ক্রিকেট থেকে অবসর নেন মিচেল জনসন। এরপর থেকে কঠিন সময়ের মধ্য দিয়ে যেতে হয়েছে অস্ট্রেলিয়ার সাবেক এই তারকা পেসারকে। সম্প্রতি চ্যানেল সেভেনকে এমনটাই জানিয়েছেন ৩৮ বছর বয়সী জনসন।

নিজের ক্রিকেট ক্যারিয়ারে অনেকবারই ইনজুরির সঙ্গে লড়াই করতে হয়েছে জনসনকে। তবে ইনজুরি কাটিয়ে প্রতিবারই মাঠে ফিরেছেন কঠিনভাবেই। কিন্তু অবসরের পর এই লড়াকু পেসারেরই সঙ্গী ছিল হতাশা এবং বিষণ্ণতা।

জনসন বলেছেন, ‘ক্রিকেটকে বিদায় জানানোর পর থেকেই আমার কাছে সবকিছু কঠিন মনে হওয়া শুরু হয়। এই পরিস্থিতিতে হঠাৎ করেই আপনার আর কিছু করার থাকবে না। আমি এই বিষয়টি নিয়ে সংগ্রাম করেছি। দুই বছর ধরে ক্রিকেট থেকে দূরে থাকার পর আমি এখন উত্তরণের পর্যায়ে আছি।’

৩৬ বছর বয়সে ক্রিকেট থেকে সরে দাঁড়ান এই অজি তারকা পেসার জানান, ‘অসংখ্যবার আমি অবসরের বিষয়ে ভেবেছি। আমি বুঝতে পেরেছি যে আমাকে বিষণ্ণতা গ্রাস করেছে। তবে আমার মতে হতাশা এমন একটা ব্যাপার যেটা আমার তরুণ বয়স থেকেই সঙ্গী। ক্রিকেট অনেক কিছুই দূরে রাখতে সাহায্য করে। এটা হতাশা লুকাতেও সাহায্য করে।’

অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ৭৩টি টেস্ট, ১৫৩টি ওয়ানডে এবং ৩০টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছেন মিচেল জনসন। টেস্টে ২৮.৪০ গড়ে ৩১৩ উইকেট শিকার করেন তিনি। ওয়ানডেতে ২৫.২৬ গড়ে ২৩৯ উইকেটের মালিক এই বাঁহাতি পেসার। আর টি-টোয়েন্টিতে ২০.৯৭ গড়ে ৩৮ উইকেট নেন জনসন।

অর্থসূচক/এএইচআর