রবিবার, নভেম্বর ১, ২০২০
Home App Home Page জীবন্ত পাইথনকেই মাস্ক হিসেবে মুখে জড়িয়েছেন বাসযাত্রী!

জীবন্ত পাইথনকেই মাস্ক হিসেবে মুখে জড়িয়েছেন বাসযাত্রী!

জীবন্ত পাইথনকেই মাস্ক হিসেবে মুখে জড়িয়েছেন বাসযাত্রী!

মহামারি করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ রোধে মাস্ক ব্যবহারের কোন বিকল্প নেই। ফলে করোনাকালে বিভিন্ন প্রকার মাস্কের ব্যবহার চোখে পড়ছে। কেউ মাস্কে পছন্দের শব্দ লিখেছেন, কেউ বা পছন্দের চরিত্রের ছবি দেওয়া মাস্ক ব্যবহার করেছেন। বেরিয়ে গিয়েছে ডিজাইনার মাস্কও। কিন্তু জ্বলজ্যান্ত পাইথনকে মুখে জড়িয়ে মাস্ক হিসেবে ব্যবহার করার কথা শুনেছেন কখনও? তবে বিষয়টি বাস্তবেই ঘটেছে।

যুক্তরাজ্যের ম্যানচেসটার শহরে এমন আজব ঘটনাই ঘটেছে। সেখানে যাত্রী ভরতি বাসের মধ্যে আস্ত পাইথনকে মুখে জড়িয়ে মাস্ক হিসেবে ব্যবহার করেছেন এক ব্যক্তি। আনুমানিক ৪০ বছর বয়সী ওই ব্যক্তির নাম এখনও পর্যন্ত জানা যায়নি। যে ভিডিওটি ভাইরাল হয়েছে তাতে নিরাপত্তার কারণে তার মুখটিকেও আবছা করে দেওয়া হয়েছে।

জানা গিয়েছে, সুইনটন এলাকা থেকে বাসে উঠেছিলেন ওই ব্যক্তি। প্রথমে বাসের অন্যান্য যাত্রীরা অতটা খেয়াল করেননি। সাপের গায়ের মতো প্রিন্টেড মাস্ক ব্যবহার করা এই করোনা পরিস্থিতিতে বিরল নয়। কিন্তু আচমকা পাশের এক মহিলা খেয়াল করেন, তা প্রিন্ট নয় আদতে একটি জ্যান্ত পাইথন।

তবে বাস কন্ডাক্টরের দাবি সাপটি দিব্যি ভদ্রলোকের মুখে গলায় জড়িয়ে ছিল। কারও কোনও ক্ষতি সে করেনি। গন্তব্য আসতেই নেমে যান ওই ব্যক্তি। ততক্ষণে তার এই ভিডিওটি রেকর্ড করে নিয়েছিলেন বাসের এক যাত্রী।

ম্যানচেসটার সরকারের পরিবহন দফতরের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, সার্জিক্যাল মাস্ক ছাড়া অন্যান্য মাস্ক পরে যাতায়াত করার অনুমতি দিয়েছে ব্রিটেন সরকার। সেই নিয়মে ওই ব্যক্তি কোনও অপরাধ করেননি। তাই তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়াও সম্ভব নয়। তবে অনেকে বন্যপ্রাণী রক্ষার আইনের ভিত্তিতে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি তুলেছেন।

অর্থসূচক/কেএসআর