মরার ভান করেও শেষ রক্ষা হলো না মেয়রের!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

0
74

লকডাউনের নিয়ম না মানায় ল্যাটিন আমেরিকার দেশ পেরুর একটি শহরের মেয়রকে গ্রেপ্তার করতে গিয়েছিল পুলিশ। এ খবর শুনে গ্রেপ্তার এড়াতে কফিনে শুয়ে মরার ভান করেছিলেন মেয়র! তবে শেষ রক্ষা হয়নি তার। পুলিশ ঠিকই তাকে গ্রেপ্তার করে নিয়ে যায়।

এনডিটিভির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, জাইমে রোলানদো আরবিনা তোরেস নামের ওই ব্যক্তি পেরুর মধ্যাঞ্চলের শহর তানতারার মেয়র। স্থানীয় সময় সোমবার সন্ধ্যায় লকডাউনের নিয়ম ভেঙে বন্ধুদের সঙ্গে মদের পার্টির আয়োজন করেছিলেন তিনি।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হওয়া একটি ছবিতে দেখা গেছে, মুখে মাস্ক পরে চোখ বন্ধ অবস্থায় মৃত সেজে একটি কফিনে শুয়ে আছেন তোরেস। সোমবার সন্ধ্যায় পুলিশ যখন তাকে গ্রেপ্তার করতে যায় সে সময় ছবিটি তোলা।

গ্রেপ্তার এড়াতে পার্টিতে থাকা তোরেসের বন্ধুদেরও এদিক সেদিক লুকোতে দেখা যায়। অনেককে ড্রয়ার থেকেও বের করে আনে পুলিশ। পরে মেয়রসহ সবাইকে থানায় নিয়ে যাওয়া হয়।

এ ঘটনায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন শহরটির বাসিন্দারা। মহামারির মধ্যে মেয়র তোরেসের নানা কর্মকাণ্ডে আগে থেকেই ক্ষুব্ধ ছিলেন তারা।

করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে গত মার্চে লকডাউন ঘোষণা করে পেরু সরকার। এরপর শহরে মাত্র আটদিন অবস্থান করেছিলেন মেয়র তোরেস। পরে আর তার দেখা পায়নি জনগণ। এ ছাড়া জরুরি কোয়ারেন্টাইন সেন্টার এবং সংক্রমণ রোধে প্রয়োজনীয় প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা নিতেও তোরেস ব্যর্থ হয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে।

করোনা ভাইরাসে বিপর্যস্ত ল্যাটিন আমেরিকার দেশগুলোর মধ্যে পেরু অন্যতম। দেশটিতে আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় এক লাখ ৩০ হাজার। তাদের মধ্যে মৃত্যু হয়েছে তিন হাজার ৭৮৮ জনের। আগামী জুন পর্যন্ত লকডাউনের মেয়াদ বাড়িয়েছে পেরু।

অর্থসূচক/কেএসআর